শনিবার, ২৭শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

মসলার গুণাগুণ

images10

আমরা রান্নায় নানারকম মসলা ব্যবহার করে থাকি। কিন্তু এসব মসলাপাতির যে ঔষধিগুণ আছে যা দাঁতের ব্যথা, হজমের গোলমাল, টাক পড়া রোধে অনেক সাহায্য করে। তাই এসব সমস্যা সমাধানে চিরচেনা মসলাপাতি রাখুন হাতের কাছে।


হলুদ বা হলদি (Curcuma longa) হলো হলুদ গাছের শিকড় থেকে প্রাপ্ত এক প্রকারের মশলা। ভারত , বাংলাদেশ এবং পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের রান্নায় এটি ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হয়। এটি আদা পরিবারের (Zingiberaceae) অন্তর্গত একটি গুল্মজাতীয় উদ্ভিদ। হলুদ গাছের আদি উৎস দক্ষিণ এশিয়া। এটি ২০ থেকে ৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার মধ্যে জন্মে থাকে।

আয়ুর্বেদীয় শাস্রমতে, হলুদ রক্ত শুদ্ধ করে৷ তাই হলুদের ফুলের পেস্ট লাগালে চর্ম রোগ দূর হয়৷

হলুদ চেহারার সৌন্দর্য বাড়াতেও সাহায্য করে৷ হলুদের সঙ্গে চন্দন মিশিয়ে মুখে লাগালে ত্বক উজ্জ্বল হ্য়৷

হলুদের মধ্যে প্রোটিন, ভিটামিন, খনিজ লবন, ফসফরাস, ক্যালসিয়াম, লোহা প্রভৃতি নানা পদার্থ রয়েছে৷ তাই হলুদ খেলে শরীরে রোগ প্রতিরোধের ক্ষমতা জন্মায়৷ লিভারের ক্ষেত্রে হলুদ খাওয়া খুবই ভাল ৷

কাঁচা হলুদ যে কতটা উপকারী তা হয়ত সকলেই জানেন৷ তবে কাচা হলুদ খাওয়ার পাশাপাশি আপনি রান্নাতেও বেশী পরিমাণে হলুদ ব্যবহার করতে পারেন৷ কারণ হলুদ এর প্রয়োগে আপনার রান্নাটা ভীষণই স্বাস্থ্যকর হয়ে যাবে৷ হলুদের মধ্যে এমন কিছু পদার্থ আছে যা শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে৷শরীরের যন্ত্রনা কমায় ৷ গা ব্যথা হলে দুধের মধ্যে হলুদ মিশিয়ে খান আরাম পাবেন৷
 

হলুদ আয়রন এবং ম্যাঙ্গানিজের উৎস। তাছাড়া হলুদে ভিটামিন বি, ফাইবার এবং পটাশিয়াম আছে। হলুদের কারকিউমিন শরীরের ক্ষতিকর ফ্রি র‌্যাডিকাল ধ্বংস করে। 
এ্যান্টিবায়োটিক এবং এ্যান্টিসেপটিক। 
অধিকাংশ রান্নায় হলুদ ব্যবহৃত হওয়ায় খাবার জীবাণুমুক্ত হয়। 
 প্রোস্টেট ক্যান্সারে হলুদ খুবই উপকারী। 
 ক্যান্সার সেলের বৃদ্ধি বন্ধ করে দেয়। 
 কোলন ক্যান্সারেও হলুদ খুবই উপকারী।
* ছোটদের লিউকেমিয়া প্রতিরোধ করে।
* লিভার ভাল রাখে।
* রক্ত চলাচল ভাল রাখে। 
* এ্যালজাইমার প্রতিরোধ করে।
* হজম ক্ষমতা বাড়ায়। 
* জন্ডিস কমাতে উপকারী। 
* ত্বক ভাল রাখে
অপকারিতা 
* হৃদরোগে হলুদ ব্যবহার না করাই ভাল 

এলাচ 
এলাচে ১০% ভোলাটাইল অয়েল আছে। এ ছাড়া এলাচ থেকে প্রোটিন ভিটামিন এবং কিছু পরিমাণ ফ্যাটও যায়। 
খাদ্যগুণ
* এলাচে ফ্যাটের পরিমাণ খবুই কম।
* প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন আছে।
* ভিটামিন-এ, বি এবং সি পাওয়া যায়। 
উপকারিতা
* এলাচ খিদে বাড়ায়
* অম্বল, বুক জ্বালা কমায় এবং হজমে সাহায্য করে। 
* শ্বাসকষ্ট এবং হৃদরোগ কমায়। 
* কাশিতে উপকারী
অপকারিতা 
* ফোঁড়ার ধাত থাকলে এলাচ ব্যবহার না করাই ভাল। 

দারুচিনি 
দারুচিনিতে অল্প পরিমাণে প্রোটিন, প্রচুর মিনারেল এবং কিছু পরিমাণে ভিটামিনও পাওয়া যায়। 
খাদ্যগুণ 
* দারুচিনির নিউট্রিশন প্রপার্টির জন্য ব্লাড সুগার কমায়।
* দারুচিনির এসেনশিয়াল অয়েল এ্যান্টি মাইক্রোবায়াল। ফলে দেহে প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে ওঠে। 
উপকারিতা
* আর্থারাইটিসের জন্য দারুচিনি খুবই উপকারী।
* ব্লাডের ইনফেকশন কমায়। 
* রক্তে কোলেস্টেরল ২ ঘণ্টার মধ্যে ১০% কমায়। 
* খাওয়ার আগে দারুচিনি খেয়ে পেট ঠিক থাকে। 
* হার্ট সুস্থ রাখে। 
* রক্ত চলাচল স্বাভাবিক রাখে। 

লবঙ্গ
উপকারিতা
* দাঁতের যন্ত্রণায় উপকারী। 
* কাশি কমায়।
* পেট ব্যথা কমায়। 
* পায়েরিয়ার ক্ষেত্রে উপকারী। 
* বমিভাব কমায়। 
* অরুচি দূর করে। 
* গলা খুশ খুশভাব কমায়। 

পেঁয়াজ
এসেনশিয়াল অয়েল এবং অর্গানিক সালফাইড পেঁয়াজের মূল উপাদান। সালফারের জন্যই পেঁয়াজের গন্ধ ও স্বাদ ঝাঁঝালো। তবে চোখের পানি আসার জন্য দায়ী পেঁয়াজে থাকা ভোলাটাইল অয়েল। রান্নার পর ভোলাটাইল অয়েল অনেকটাই কমে যায়।
খাদ্যগুণ 
* কিছু পরিমাণে প্রোটিন, ফ্যাট এবং ফাইবার আছে। 
* ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, পটাশিয়াম, আয়রন এবং ক্যারোটিন আছে ভাল পরিমাণে। 
* ১০০ গ্রাম পেঁয়াজ ৫০ কিলো ক্যালরি এনার্জি দেয়।
উপকারিতা
* থেতো করা কাঁচা পেঁয়াজ কপালে দিলে মাথাব্যথা কমে।
* কাঁচা পেঁয়াজ খেলে কোলেস্টেরল কমে। 
* হৃদরোগ, থ্রম্বোসিস, ব্লাড প্রেসারে কাঁচা পেঁয়াজ উপকারী। 
* পেঁয়াজ সালফার ক্যান্সার কোষের বৃদ্ধি কমায়।
* এ্যানিমিয়া, পাইলসের জন্য উপকারী। 
অপকারিতা
মাইগ্রেনের সমস্যা থাকলে পেঁয়াজ খাওয়া ঠিক নয়। 
 

রসুন
মিনারেলসের মিনি স্টোর হাউস রসুন। ছোট্ট এক কোয়া রসুন এ্যান্টিবায়োটিক, এ্যান্টিভাইরাল, এ্যান্টিফাঙ্গাস, এ্যান্টিসেপটিক হিসেবে কাজ করে। রসুনের সালফার শরীরের হারমোন নিঃসরণে সাহায্য করে। শুধু কাঁচা রসুনই নয়, রান্নাতে ব্যবহৃত রসুনও শরীরের জন্য উপকারী।
খাদ্যগুণ 
* রসুনে এ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সেলেনিয়ম থাকে। কোষ ধ্বংসের থেকে রক্ষা করে। 
* ট্রাইগ্লিসারাইড আটারি পরিষ্কার রেখে হৃদরোগের সম্ভাবনা কমায়। 
* এ্যান্টিকোয়াগুলেন্ট বলে রক্ত জমাট বাঁধতে দেয় না। 
উপকারিতা 
* ক্যান্সার, হৃদরোগ প্রতিরোধে কিছুটা সাহায্য করে। 
* উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখে। 
* শরীরে প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। 
* লিভারকে রক্ষা করে।
* ডায়াবেটিস কমায়।
* এ্যাকনের জন্য রসুন খুব উপকারী। অ্যান্টিসেপটিক, অ্যান্টিবায়োটিক হিসেবে রসুন ক্ষতিগ্রস্ত ত্বক সারিয়ে তোলে। ত্বকের পিএইচ লেভেলও বজায় রাখে।
* রসুনের তেল চুলপড়া বন্ধ করে। 

অপকারিতা 
* কাঁচা রসুন অনেক সময়ই পেটের জন্য উপকারী হয় না। 

আদা
আদার ঝাঁঝেই উপকারিতা। আদায় আছে প্রোটিন, কার্বোহাইড্রেট, মিনারেল, ভিটামিন, পটাশিয়াম, ফসফরাস।
খাদ্যগুণ
* আদায় ভিটামিন সি বেশি থাকায় সর্দি-কাশি প্রতিরোধ করে। 
* রাইবোফ্লাভিন পেট পরিষ্কার রাখে
উপকারিতা
* আদা ক্যান্সার প্রতিরোধ করে।
* সর্দি-কাশি কমায়। 
* হৃদরোগ নিয়ন্ত্রণ করে।
* ডায়াবেটিস কমায়। 
* বাতের ব্যথা কমায়। 
* হজমে সাহায্য করে। 
অপকারিতা
জিন্ডস ও আলসারে আদা খাওয়া উচিত নয়। 

গোলমরিচ
উপকারিতা 
* কাশি-গলা ব্যথা কমায়।
* বদহজম সারায়। 
* সাইনাসে উপকারী। 
* শরীর শুকিয়ে যাওয়া রোধ করে। 
* খুশকি সারায়। 

জায়ফল 
উপকারিতা
* ব্লাড প্রেসার কমায়। 
* পেট পরিষ্কার রাখে। 
* ডায়ারিয়ার ক্ষেত্রে উপকারী।
* হার্ট সক্রিয় রাখে। 
* নিদ্রাহীনতার ক্ষেত্রে উপকারী।
* লিভার থেকে টকসিন দূর করে ভাল রাখে। 
* মনসংযোগ বাড়ায়। 

জয়ত্রী 
উপকারিতা
* টনসিল কমায়। 
* কাশিতে উপকারী। 
* বমিভাব কমায়। 
* ব্রণের ক্ষেত্রে উপকারী। 
* গলা-বুক শুকিয়ে গেলে জয়ত্রী উপকারী।

এ জাতীয় আরও খবর

আহসান কবীরকে চাপা দেওয়া সিটি করপোরেশনের গাড়িচালক গ্রেপ্তার

নাসিরনগরে স্থায়ী মন্দিরের নিরাপত্তা বিষয়ক মতবিনিময় সভা

নাসিরনগরে ধান ক্ষেত থেকে অজ্ঞাত ব‍্যাক্তির লাশ উদ্ধার

নাসিরনগরে তৈরি হচ্ছে দেশীয় মাছের নানা জাতের শুটকি

বিয়ের আগেই মা হচ্ছেন স্বরা!

রাস্তা হওয়া উচিত ক্যাটরিনার গালের মতো মসৃণ: রাজস্থানের মন্ত্রী

ঢাকায় বিএনপির মশাল মিছিল

খালেদাকে স্লো পয়জনিং করলে বিএনপির লোকেরাই করতে পারে: কাদের

গণতন্ত্রের কথা বলে যুক্তরাষ্ট্র বিভিন্ন দেশকে চাপে রাখতে চায়

লাইসেন্স ছাড়াই ডিএসসিসির গাড়ি চলাচ্ছিলেন হারুন-রাসেল: র‌্যাব

সেই লিটন, এই লিটন

ভোলায় মাঝনদীতে চেয়ারম্যান-মেম্বারদের লক্ষ্য করে গুলি, নিহত ১