শুক্রবার, ৩১শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ১৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শিশু নাট্যমের চিত্রকলা প্রদর্শনী ও সাংস্কৃতিক উৎসবের দ্বিতীয় দিনের অনুষ্ঠানে এডিসি খলিল

Brahmanbaria Shishu Nattom Photoনিজস্ব প্রতিবেদক : ছবি আঁকার মাধ্যমে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নতুন প্রজন্মকে কর্মমুখী শিক্ষায় উপযোগী করে গড়ে তুলছে
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোঃ খলিলুর রহমান বলেছেন, সঙ্গীতের রাজধানী ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এখন ছবি আঁকার নতুন ধারা সৃষ্টি করেছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যম। এই ধারা অব্যাহত রাখতে দল মত নির্বিশেষে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। ছবি আঁকার মাধ্যমে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নতুন প্রজন্মকে আগামী দিনের কর্মমুখী শিক্ষায় উপযোগী করে গড়ে তুলছে। বর্তমান সরকার পাঠ্যসুচীতে এখন চারুকলা বিষয়টি বাধ্যতামূলক করেছে। দেশের অধিকাংশ শিশু এখনও এই শিক্ষা থেকে বঞ্চিত। শিশুদের সুপ্ত প্রতিভা বিকাশে প্রত্যন্ত অঞ্চলেও ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যমের মতো সংগঠন গড়ে তুলতে হবে। তিনি আরো বলেন, শত প্রতিকূলতার মাঝেও ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যম এখনও বেঁচে আছে। আগামী দিনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যম আরো বেগবান হউক এই কামনা করি।
গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে স্থানীয় শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত ভাষা চত্বরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যম আয়োজিত আর এ কে সিরামিকস্ ২৩তম বার্ষিক শিশু চিত্রকলা প্রদর্শনী ও সাংস্কৃতিক উৎসবের দ্বিতীয় দিনের প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। অনুষ্ঠান পুরস্কার বিতরনী-এই দুই পর্বের অনুষ্ঠানে সভাপতিত্বে করেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যমের সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতা নিয়াজ মোহাম্মদ খান বিটু ও কার্যকরী কমিটির সদস্য চারুকলা বিভাগের প্রাক্তন ছাত্র এডঃ মোঃ শাহীনুল ইসলাম শাহীন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যমের প্রাক্তন ছাত্র দিপ্ত মোদক। আবৃত্তি শিল্পী ও সাংবাদিক হাবিবুর রহমান পারভেজের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন সাবেক স্পেশাল পিপি এডঃ সৈয়দ তানভীর আহমেদ কাউসার, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সাবেক সম্পাদক মোঃ সাদেকুর রহমান, সাবেক সহ সভাপতি শেখ মোঃ শহীদুল ইসলাম। বক্তব্য রাখেন, মিশু, রাজু সরকার, ইমন, শুভ প্রমুখ। শিশু নাট্যমের সঙ্গীত বিভাগের শিল্পীদের গানের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠান শুরু হয়। চারদিনব্যাপী উৎসবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যমের ছবি আঁকা ও সঙ্গীত বিভাগের তিন শতাধিক শিক্ষার্থী অংশ নিচ্ছে। আলোচনা শেষে প্রধান অতিথি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোঃ খলিলুর রহমান কবিতা আবৃত্তি ও বিতর্ক চিত্রাংকন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরন করেন। আজ তৃতীয় দিনের কর্মসূচীর মধ্যে রয়েছে সকাল ৯ টায় সঙ্গীত প্রতিযোগিতা, বিকেল ৩টায় শিশুদের চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা, বিকেল ৪টায় আলোচনা ও সঙ্গীত, একুশে ফেব্রুয়ারী চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা এবং ২০১৩ সালের শ্রেষ্ঠ আঁকিয়েদের মাঝে পুরস্কার বিতরন। এতে প্রধান অতিথি থাকবেন সোহরাওয়ার্দী হলের সাবেক ভিপি ইঞ্জিনিয়ার খালেদ হোসেন মাহবুব শ্যামল। সন্ধ্যা পাঁচটায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া শিশু নাট্যম ও আবরনি (একটি সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন) আয়োজনে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হবে। 

এ জাতীয় আরও খবর

নজরুল পুরস্কার পেলেন চার গুণী

জামানত হারিয়েছেন ওবায়দুল কাদেরের ভাই শাহাদাত

ভিসা হয়নি ২৯২ হজযাত্রীর, ৯ এজেন্সির ব্যাখ্যা তলব

শাকিবের জীবনে প্রথম প্রেমিকা আমি : অপু বিশ্বাস

সাকিবের দলে খেলবেন মিলার

র‍্যাবের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উত্তম কুমারের দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা

বেনজীরের বিরুদ্ধে টাকা সরানোর প্রমাণ পেয়েছে দুদক

ঈদযাত্রায় একদিন একটু কষ্ট হলে কী আসে-যায়: কাদের

ফরিদপুর-১ আসনের সাবেক এমপি মনজুর হোসেন আর নেই

দস্যুতা না ছাড়লে দুঃসংবাদের খবর দিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

‘দেশের সবচেয়ে লাভজনক’ কক্সবাজার স্পেশাল ট্রেন বন্ধ

সরকারের স্বার্থ নয়, জনগণের অধিকার নিশ্চিতে কাজ করব : ইসির নতুন সচিব