মঙ্গলবার, ২৮শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ১৪ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রশ্নফাঁস: আহছানউল্লা ইউনিভার্সিটিতে তিনজন বহিষ্কার

news-image

নিজস্ব প্রতিবেদক : সম্প্রতি অনুষ্ঠিত সরকারি পাঁচ ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁসের সঙ্গে জড়িত থাকায় অভিযোগে আহছানউল্লা ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির তিনজনকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

বুধবার (১০ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মো. মোশারফ হোসেন স্বাক্ষরিত অফিস আদেশের মাধ্যমে তাদের বহিষ্কার করা হয়।

আদেশে বলা হয়েছে, বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্তে আহ্ছানউল্লাহ ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি’র একজন কর্মকর্তা ও দুই কর্মচারীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। বহিষ্কারের কারণ হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলাভঙ্গের বিষয়টি উল্লেখ করা হয়েছে।

বহিষ্কৃত কর্মকর্তা-কর্মচারীরা হলেন- হার্ডওয়্যার ও নেটওয়ার্কের টেকনিশিয়ান মো. মুকতাররুজ্জান, ল্যাব সহকারী মো. পারভেজ মিয়া ও অফিস অ্যাটেডেন্ট মো. দেলোয়ার হোসেন। নির্দেশনা জারির পরে এটি কার্যকর হবে বলেও চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ কর্মকর্তা সামছুল জানান, কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে এ নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ ও প্রাথমিকভাবে তা প্রমাণিত হওয়ায় কর্তৃপক্ষ এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এদিকে গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের সদস্যরা ছদ্মবেশ ধারণ করে প্রশ্নফাঁসের সঙ্গে জড়িত চক্রের পাঁচ সদস্যকে গ্রেপ্তার করে।

তাদের কাছ থেকে পাওয়া তথ্যে ডিবি বলছে, ব্যাংকের চারটি নিয়োগ পরীক্ষারই প্রশ্নফাঁস করেছে এ চক্রটি। এচক্রের সঙ্গে জড়িতে এবং গ্রেপ্তারকৃতদের তিনজনই সরকারি বিভিন্ন ব্যাংকের কর্মকর্তা। প্রশ্নপত্র প্রণয়নসহ পরীক্ষা আয়োজনের দায়িত্বে আহছানউল্লা ইউনির্ভাসিটি অব সাইন্স অ্যান্ড টেকনোলজির আইসিটি বিভাগ থেকে এসব প্রশ্নফাঁস হয়েছে।

এ পর্যন্ত এ চক্রটি প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র ফাঁসের মাধ্যমে চাকরিপ্রত্যাশীদের কাছ থেকে ৬০ কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে জানায় ডিবি।