শুক্রবার, ২২শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

জাতীয় পুরস্কার অনুষ্ঠান উপস্থাপনায় মিলন ও ভাবনা

news-image

বিনোদন প্রতিবেদক : জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের মঞ্চে একত্রে দেখা যাবে অভিনেতা আনিসুর রহমান মিলন ও অভিনেত্রী আশনা হাবিব ভাবনাকে। ১৭ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বসছে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান-২০১৯-এর আসর। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করছেন এ দুই অভিনয়শিল্পী।

প্রায় ১০ বছর আগে একটি টেলিভিশনের অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেছিলেন মিলন। এরপরে মঞ্চে সরাসরি কোনো অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করেননি তিনি। এবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করবেন তিনি। একে এক সম্মানজনক সুযোগ বলে মনে করছেন এ অভিনেতা। মিলন বলেন, ‘এ রকম সম্মানজনক অনুষ্ঠান উপস্থাপনার সুযোগ পাওয়া মানে আমাকে সম্মানিত করা হয়েছে বলে মনে করি। খুবই সম্মানিত বোধ করছি আমি।’

তবে অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করতে ভয়ও পাচ্ছেন বলে জানালেন তিনি। মিলন বলেন, ‘পুরো সময় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ভার্চ্যুয়ালি সংযুক্ত থাকবেন। সামনে অনেক নামী মানুষ অনুষ্ঠান উপভোগ করবেন। তাঁদের সামনে সরাসরি উপস্থাপনা করা কম সাহসের কথা নয়। টেনশন কাজ করছে।’

এদিকে উপস্থাপনায় এবারই প্রথম ভাবনা। জানালেন, জীবনের প্রথম উপস্থাপনা জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে। দারুণ এক রোমাঞ্চকর ব্যাপার। ভাবনা বলেন, ‘জীবনে প্রথম উপস্থাপনা হবে এটি। তা–ও আবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠান। মঞ্চে সরাসরি উপস্থাপনা করতে হবে। ভুল হওয়ার কোনো সুযোগ নেই এখানে।’ তবে ভাবনার কিছুটা ভয় পাচ্ছেন। তিনি বলেন, ‘এর আগে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সামনে নাচ করেছি। কিন্তু এ ধরনের অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করিনি। নার্ভাস লাগছে একটু। এরপরও মিলন ভাই সঙ্গে আছেন, এতে কিছুটা সাহস পাচ্ছি।’

এরই মধ্যে অনুষ্ঠানের চিত্রনাট্য হাতে পেয়েছেন দুজন। তাঁরা জানালেন, ১৬ জানুয়ারি দুজন মিলে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের চূড়ান্ত মহড়া করবেন। সম্প্রতি মিলন শেষ করলেন ‘গাঙচিল’ ছবির শুটিং। দুটি গানের শুটিং শেষ হলেই এই ছবির মূল কাজ শেষ হবে। এ ছাড়া ‘মুক্তি’ নামে একটি নতুন চলচ্চিত্রের কাজ শুরু করেছেন তিনি। ‘চিটিং মাস্টার’ ও ‘গোলমাল’ নামে দুটি টিভি ধারাবাহিকের কাজও চালিয়ে নিচ্ছেন এ অভিনেতা। তবে করোনামুক্ত হওয়ার পর কাজ কমিয়ে দিয়েছেন বলে জানালেন এ অভিনেতা।

অন্যদিকে ‘পরবাসী মেঘ’ নামে একটি টেলিছবি ও ‘ঠিকানা ৩২’ নামে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্যের কাজ শেষ করেছেন ভাবনা। বাংলাভিশনের ধারাবাহিক ‘হিট’–এ দেখা যাবে তাঁকে।