বৃহস্পতিবার, ২রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ ১৯শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বিএনপিকে মোকাবিলা করবে ১৪ দল: আমু

news-image

নিজস্ব প্রতিবেদক : ১০ ডিসেম্বরের সমাবেশকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা দেশকে অস্থিতিশীল করার পরিকল্পনা বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য, ১৪ দলের সমন্বয়ক ও মুখপাত্র আমির হোসেন আমু।

দেশের চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ে বৃহস্পতিবার রাজধানীর নিউ ইস্কাটনস্থ নিজ বাসভবনে ১৪ দলের বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আমু এসব কথা বলেন।

আমির হোসেন আমু বলেন, ১০ ডিসেম্বরের সমাবেশক কেন্দ্র করে রাজপথে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি এবং কোনো ধরনের নাশকতা মেনে নেওয়া হবে না। ১৪ দল তাদের মোকাবিলা করবে।

প্রবীণ এই রাজনীতিবিদ বলেন, মানুষের অসহায়ত্ব পুঁজি করে গণতন্ত্র এবং ভোটের দাবির পেছনে বিএনপির মূল লক্ষ্য সংবিধান পরিবর্তন করা। বিজয় দিবসের আনুষ্ঠানিকতা নষ্ট করার জন্য বিএনপি দেশে অরাজকতা তৈরির প্রস্তুতি নিচ্ছে।

আমু বলেন, দেশের সাংবিধানিক শূন্যতা এবং রাজনৈতিক শূন্যতা সৃষ্টির জন্য বিএনপি রাজপথে নৃশংসতার পথ বেছে নিয়েছে। ১৪ দল আওয়ামী লীগের সঙ্গে জোট বেঁধেই আগামী নির্বাচনে বিএনপি-জামায়াত অপশক্তির বিরুদ্ধে লড়বে।

তিনি আরও বলেন, বিএনপি জামাতের দেশবিরোধী ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে জনমত গড়ে তুলতে পেশাজীবি সংগঠনগুলোর সঙ্গে ১৪ দল বৈঠক করবে। ১৪ দলভিত্তিক দলগুলো দেশব্যপী সরব হবে।

আমির হোসেন আমুর সভাপতিত্বে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন, সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা, জাতীয় পার্টির (জেপি) চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ) সভাপতি হাসানুল হক ইনু, বাংলাদেশের সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ বড়ুয়া, বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশনের চেয়ারম্যান নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী, গনতন্ত্রী পার্টির সাধারণ সম্পাদক ডা. শাহাদাত হোসেন, গন আজাদী লীগ সভাপতি এস কে সিকদার, ন্যাপের সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন, বাসদের আহ্বায়ক রেজাউর রশিদ খানসহ জোটের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন।