বৃহস্পতিবার, ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ ২৬শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ছেলেকে রেখে বাবার তৃতীয় বিয়ে, অভিমানে কলেজছাত্রের আত্মহত্যা!

news-image

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি : ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জের কলেজছাত্র সাকিবুল ইসলাম জয়। দীর্ঘ দিন ধরে নিজের বিয়ের জন্য বাবাকে বলে আসছিল। কিন্তু বাবা তাকে বিয়ে দেননি। উল্টো তার বাবা নিজেই তৃতীয় বিয়ে করেন। এ ঘটনায় ‘অভিমানে’ জয় আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

গতকাল রোববার পৌর শহরের ভাকুড়া উত্তরপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ জয়ের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঠাকুরগাঁও মর্গে পাঠিয়েছে। সে পীরগঞ্জ সরকারি কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।

পৌর কাউন্সিলর মাহাফুজ জানান, জয় ও এক মেয়েকে রেখে মামুজানের প্রথম স্ত্রী পালিয়ে গিয়ে অন্য জাগায় বিয়ে করেন। এরপর দ্বিতীয় বিয়ে করেন মামুজান। দ্বিতীয় স্ত্রীও এক মেয়ে রেখে প্রায় দুই বছর আগে পালিয়ে যান। এরপর সংসারের হাল ধরতে তার বড় ছেলে জয় বিয়ে করতে চায়। বয়স না হওয়ায় জয়কে বিয়ে দেননি তার বাবা। পরে নিজেই তৃতীয় বিয়ে করেন। এতে হতাশায় ভুগছিল জয়। এ কারণে সে আত্মহত্যা করতে পারে।

পীরগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) বাবুল আকতার জানান, ৬ মাস ধরে বিয়ে করতে চায় সাকিবুল ইসলাম জয়। কিন্তু তার বাবা তাকে বিয়ে না দিয়ে তিন মাস আগে নিজেই তৃতীয় বিয়ে করেন। বাবার তৃতীয় বিয়ে করায় মন খারাপ হয় জয়ের। এরপর হতাশায় ভুগতে থাকে সে। অবশেষে গতকাল রাতে নিজ ঘরে ফ্যানের সঙ্গে মাফলার পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে জয়।

পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গীর আলম জানান, এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হয়েছে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে।

 

এ জাতীয় আরও খবর

টানা ষষ্ঠ জয়ে শীর্ষ দুইয়ে রংপুর

দক্ষতার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করেছেন রাষ্ট্রপতি : প্রধানমন্ত্রী

সেনাবাহিনীর নেতৃত্বে তুরস্কে গেলো বিশেষ উদ্ধারকারী দল

এসেছে কয়লা, চালু হচ্ছে রামপাল

আওয়ামী লীগের আমলে সুষ্ঠু নির্বাচন হয়: প্রধানমন্ত্রী

মওলানা ভাসানীকে সম্মান না করলে গুনাহ হবে: ডা. জাফরুল্লাহ

বিমানের ১৭ কর্মকর্তাকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ

দেশে খাদ্যের কোনো ঘাটতি নেই: খাদ্যমন্ত্রী

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বেলজিয়ামের সহযোগিতা চান রাষ্ট্রপতি

প্রধানমন্ত্রী জানালেন গ্যাস-বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর কারণ

কবজিবিহীন হাতে লিখে জিপিএ-৫ পেলেন জান্নাতুল

নবনির্বাচিত ৬ এমপি শপথ নিলেন