শনিবার, ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১৪ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

পাঁচ বিদেশির সঙ্গে গোল উৎসবে বাংলাদেশের জুয়েল

news-image

স্পোর্টস ডেস্ক : শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব ও বাংলাদেশ পুলিশ ফুটবল ক্লাবের ম্যাচে গোল হয়েছে ৬টি। গোলদাতাদের ৫ জন বিদেশি, ম্যাচের ষষ্ঠ গোল করে বিদেশিদের পাশে নাম লিখিয়েছেন বাংলাদেশের মোহাম্মদ জুয়েল।

বাংলাদেশি ফরোয়ার্ডের পা থেকে আসা শেষ গোলটিই ছিল ম্যাচের ফলাফল নির্ধারক। ৬৯ মিনিটে করা ওই গোলে ২-৩ ব্যবধানে পিছিয়ে পড়া বাংলাদেশ পুলিশ নিশ্চিত করেছে এক পয়েন্ট এবং দুই পয়েন্ট ছুটে গেছে শেখ জামালের হাত থেকে। রেফারির শেষ বাঁশির পর সতীর্থরা জুয়েলের পিঠ চাপড়িয়েছেন, পুলিশের হারতে যাওয়া ম্যাচটি যে ড্র করিয়েছেন এ যুবক।

ড্র-হার-ড্র, এভাবেই লিগে এগিয়ে চলছে পুলিশ। আর শেখ জামাল যেন ড্রয়ের চক্রেই আটকে গেছে। টানা চারটি ড্র করলো শফিকুল ইসলাম মানিকের দল। জিতলে টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে থাকা আবাহনীর আরো কাছে যেতে পারতো তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা। দুই পয়েন্ট করে হারিয়ে টানা চারটি ম্যাচ পার করেছে তারা।

শেখ জামালের ফরোয়ার্ড লাইন গাম্বিয়ানদের দিয়ে সাজানো। ওমর জোবে, সোলেমান সিলাহ ও সলোমন কিং কনফার্মরা দুর্দান্ত খেলছেন। এর মধ্যে ওমর জোবের নামের পাশে তো ‘গোলমেশিন’ শব্দটি যোগ হয়েছে। এ ম্যাচে লিগে নিজের ১১ নম্বর গোলটি করছেন তিনি। এ মুহূর্তে আছেন গোলদাতাদের শীর্ষে আছেন।

এই ওমর জোবে ১০ মিনিটে এগিয়ে দিয়েছিলেন শেখ জামালকে। কিরগিজস্তানের আকমেদভের গোলে পুুলিশ ম্যাচে ফেরে ৩৩ মিনিটে। দুই দলের আক্রমণভাগের তেজ ও ডিফেন্স দুর্বলতাই আভাস দিচ্ছিল বেশ কিছু গোল দেখবে দর্শক।

গোল হলো দুই দলের আরো দুটি করে। ২৪ মিনিটে উজবেকিস্তানের ওতাবেগের গোলে দ্বিতীয়বার লিড নেয় শেখ জামাল, পুলিশ দ্বিতীয়বার ম্যাচে ফেরে প্রথার্ধের ইনজুরি সময়ে আইভরিকোস্টের পুডার গোলে।

৪৯ মিনিটে তৃতীয়বার লিড নেয় শেখ জামাল। এবার গোলদাতা আরেক গাম্বিয়ান সলোমন কিং। বিদেশিদের গোল পাল্টা-গোলের মধ্যে ৬৯ মিনিটে উদযাপনে মাতেন বাংলাদেশি জুয়েল। জামালের গোলরক্ষক মামুন খানের হাত থেকে ছুটে যাওয়া বল নিখুঁত ফিনিশিংয়ে জালে পাঠান তিনি।

৯ ম্যাচে ১৯ পয়েন্ট শেখ জামালের। টেবিলে আছে ৩ নম্বরে। অন্যদিকে পুলিশ ৯ ম্যাচে ৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের অষ্টম স্থানে।

এ জাতীয় আরও খবর