বৃহস্পতিবার, ৪ঠা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শীতে যে পাঁচ ভুল করলেই ক্ষতি হয় চুলের

news-image

লাইফস্টাইল ডেস্ক : শীতে ত্বক ও চুলের নানা সমস্যা হয়ে থাকে। এর মধ্যে চুল পড়া, আগা ফাটা এবং খুশকির সমস্যা অন্যতম। এর পেছনে কারণও রয়েছে। আমরা শীতে বেশ কিছু সাধারণ ভুল করে থাকি।প্রসাধনী ব্যবহারের ধরন থেকে পানির তাপমাত্রা শীতে চুলের ওপর গভীর প্রভাব ফেলে। আসুন, জেনে নিই শীতে আমরা সাধারণত যে পাঁচটি ভুল করে থাকি, সে সম্পর্কে-

শীতকালে গরম পানি দিয়ে গোসল দারুণ স্বস্তিদায়ক অনুভূতি দেয়। তবে জানেন কি? গরম পানি চুল থেকে প্রাকৃতিক তেল দূর করে, সে কারণে চুল শুষ্ক হয়ে যায়। যদি গরম পানি দিয়ে গোসল করতেই চান, তবে একেবারে হালকা গরম পানি দিয়ে করুন এবং গোসল শেষ করুন ঠান্ডা পানি দিয়ে। এতে ফল ভালো মিলবে।

গোসল করার পর ভেজা চুলে ঘর থেকে বের হবেন না। এ ভুলও আমরা করে থাকি। ভেজা চুলে বাইরে বের হয়ে যাই। এতে চুলে নানা সমস্যা দেখা দেয়। বাইরে বের হওয়ার আগে চুল পুরোপুরি শুকিয়ে নিন।

শীতে শুষ্ক ও রুক্ষ চুলের অন্যতম কারণ লাগাতার হিট স্টাইলিং। গরম পানি দিয়ে গোসলের মতোই এটি ক্ষতিকর। প্রতিদিন হিট স্টাইলিং করলে চুল ময়েশ্চার হারায় এবং চুল ফাটা বাড়ে। তাই যতটা সম্ভব কম হিট স্টাইলিং করুন। চুল বাতাসে শুকালে ভালো।

যদি আপনি মাথায় টুপি পরে থাকেন, তবে অবশ্যই কাপড়ের কথা বিবেচনা করবেন। উল ও সুতির কাপড় চুল থেকে ময়েশ্চার শুষে নেয় এবং শুষ্ক ও রুক্ষ করে তোলে। এসব কারণে চুল ফাটে এবং চুল পড়া শুরু হয়। তাই ময়েশ্চার না হারানোর কথা যদি ভাবেন, তাহলে হ্যাট বা কোট পরার সময় সিল্কের কাপড় ব্যবহার করতে পারেন।

ঠিক যেমন শীতে প্রসাধনী বদলাতে হয় তেমন করে চুলের প্রসাধনীও বদলাতে হবে। শীতের জন্য আলাদা পণ্য কিনুন, যা এ কালের উপযোগী। প্রসাধনীতে যেন ময়েশ্চার থাকে। এতে রুক্ষ শীতেও আপনার চুল নরম ও উজ্জ্বল থাকবে।