সোমবার, ২৩শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নিঃসঙ্গতা স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর!

news-image

 প্রাপ্তবয়স্ক হয়েও একা একা থাকলে আপনার জন্য হয়তো সামনে দুঃসংবাদই অপেক্ষা করছে। নতুন এক গবেষণার ফল বলছে, একা থাকাটা স্বাস্থ্যের জন্য নেতিবাচক। যুক্তরাজ্যের ডেইলি এক্সপ্রেসের বরাত দিয়ে জিনিউজ এক প্রতিবেদনে এমনটাই জানিয়েছে। ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডনের ডক্টর জর্জ প্লাওবিদিস বলেন,‘আপনি যদি একা মানুষ হয়ে থাকেন সেটা ইতিবাচক কিছু নয়।’ ইংল্যান্ড, স্কটল্যান্ড ও ওয়েলসে জন্মগ্রহণকারী ১০ হাজার নারী-পুরুষের ওপর চালানো এক গবেষণার ফল থেকে তিনি এই মন্তব্য করেন। গবেষণা প্রতিবেদনটি আমেরিকান জার্নাল অব পাবলিক হেলথ-এর অনলাইন সংস্করণে প্রকাশিত হয়েছে। গবেষণায় দেখা গেছে, বিয়ের সম্পর্কে আবদ্ধ থাকা পুরুষদের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ভালো। আর তালাকের পর অন্য কোনো সম্পর্কে আবদ্ধ রয়েছেন এমন নারীরা প্রায় বিবাহিত সুখী নারীদের মতোই সুস্বাস্থ্যে থাকেন। প্লাওবিদিস বলেন, সম্পর্ক ভেঙে যাওয়ার পর পুনরায় নতুন কোনো সম্পর্কে আবদ্ধ হয়ে গেলে তালাকের দীর্ঘমেয়াদি নেতিবাচক প্রভাবের শিকার হতে হয় না। আর আবারও বিয়ে করা বা নতুন কোনো সম্পর্কে জড়ানো থেকে পুরুষেরাই নারীদের চেয়ে বেশি সুবিধা পেয়ে থাকে বলেও মন্তব্য করেন এই গবেষক। বিশ বা তিরিশের কোটাতেই যে নারীদের বিয়ের সম্পর্ক ভেঙে যায় তাঁদের মধ্যে হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি স্থায়ী কোনো সম্পর্কে আবদ্ধ নারীদের চেয়ে বেশি। তবে, আশ্চর্যের বিষয় হলো, তিরিশের কোটায় গিয়ে তালাকের শিকার হওয়া এবং পুনরায় বিয়ে না করা পুরুষেরা বিবাহিত পুরুষদের তুলনায় ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়া বা এ ধরনের স্বাস্থ্য সমস্যা থেকে অনেকটাই মুক্ত থাকেন। গবেষণায় মন্তব্য করা হয়েছে যে, নারী-পুরুষের জুটির ক্ষেত্রে দুজনের আয়ও স্বাস্থ্যগতভাবে ভালো থাকা না থাকার ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হিসেবে কাজ করে। আর যে নারী বা পুরুষেরা কখনোই বিয়ে করেনি, লিভ টুগেদার বা জুটি বেঁধে একত্রে বসবাস করেনি তাঁরাই মধ্যবয়সে গিয়ে সবচেয়ে বেশি স্বাস্থ্য সমস্যায় ভুগে থাকেন।

এ জাতীয় আরও খবর