শনিবার, ২১শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কী করলেন ধোনি!

news-image

নিজের আগের দুই ওভারে দুজনকে ফিরিয়েছেন। এর মধ্যে ওয়ানডের সর্বোচ্চ ইনিংসের রানের মালিককে দিয়ে খুলেছেন উইকেটের খাতা। আজই ওয়ানডেতে অভিষিক্ত মুস্তাফিজুর রহমানকে শেষ পর্যন্ত খোঁড়াতে খোঁড়াতে মাঠ ছাড়তে হলো। নিজের সপ্তম আর ইনিংসের ২৫তম ওভারটি শেষই করতে পারেননি। উইকেটে মহেন্দ্র সিং ধোনির সঙ্গে ধাক্কা লেগে শেষ পর্যন্ত ড্রেসিংরুমে ফিরেছেন। আবার মাঠে ফিরতে পারবেন কিনা, এই প্রতিবেদন লেখার সময় বলার উপায় ছিল না।
ক্রিকেটের আইন বলবে ধোনি অন্যায় কিছু করেননি। তিনি তাঁর পথ ধরেই বলটা ঠেলেই সিঙ্গেল নেওয়ার জন্য ছুটেছেন। বরং মুস্তাফিজই ধোনির দৌড়ের পথের ওপর এসে পড়েন। কিন্তু আইনের ভাষায় সব লেখা থাকে না। আইনের ভাষাই শেষ কথা নয়। ধোনি চাইলে মুস্তাফিজের সঙ্গে ধাক্কাটা এড়িয়েও যেতে পারতেন। বরং রিপ্লে দেখে মনে হয়েছে, ভারতীয় অধিনায়ক যেন ক্ষণিকের জন্য মেজাজ হারিয়ে ইচ্ছে করেই ধাক্কাটা মেরেছেন। পলকা শরীর। এখনো বয়স ২০ বছরও হয়নি। ওয়ানডে খেলতে নেমেছেন আজই প্রথম। সেই মুস্তাফিজ ধোনির মতো পেটানো শরীরের ধাক্কা সামলে উঠতে পারবেন কেন? এর আগে আন্তর্জাতিক ম্যাচই খেলেছেন একটি। সেটিও টি-টোয়েন্টি। ১১ বছর ধরে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা ভারতীয় অধিনায়ক কি পারতে না সংঘর্ষটা এড়াতে? বলের দিকে চোখ ছিল মুস্তাফিজের। ধোনিরও। কিন্তু বলটা মি​ড অফের দিকে গিয়েছিল বলে মুস্তাফিজ ঘুরে গিয়েছিলেন। পেছন থেকে কে আসছে দেখার উপায় ছিল না তাঁর। কিন্তু ধোনি স্ট্রাইকিং প্রান্ত থেকে আস​ছিলেন। প্রথম দিকে চোখে না পড়লেও শেষ মুহূর্তে ঠিকই মুস্তাফিজকে দেখতে পান। আর সেই সময়ই সরে যাওয়ার বদলে যেন ইচ্ছে করেই ধাক্কা মেরে মুস্তাফিজকে সরিয়ে দেন। এর পর আম্পায়ারের কাছে অভিযোগও করেন। আইনত ধোনি ঠিক আছেন। কিন্তু ভারতীয় অধিনায়কের যে ভাবমূর্তি, এর সঙ্গে এটি যেন বড্ড বেমানান। এমনিতে ২০ রানের মধ্যে ৪ উইকেট হারিয়ে ভারত ধুঁকছিল। ভীষণ চাপের মুখে পড়ে গিয়েছিল। হয়তো সেই চাপেরই বহিঃপ্রকাশ। কিন্তু আজ থেকে বহু দিন পরও যদি এই ঘটনার ফুটেজ দেখেন, ধোনি নিশ্চয়ই অনুতপ্ত হবেন। ভারত অধিনায়ক অবশ্য নিজেও এই ঘটনার পর বেশিক্ষণ উইকেটে থাকতে পারেননি। সাকিবের বলে মুশফিকের দুর্দান্ত ক্যাচ হয়ে ফিরেছেন। কিন্তু এখনো মাঠে ফেরা হয়নি ৩৭ রানে ২ উইকেট নেওয়া মুস্তাফিজের।

এ জাতীয় আরও খবর