রবিবার, ২২শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

গণতন্ত্রে উত্তরণে সহযোগিতা চাইবে বিএনপি

news-image

ডেস্ক রির্পোট বাংলাদেশ সফররত ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে বিএনপি চেয়ারপারসন ও ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতা খালেদা জিয়ার বৈঠক আজ। বিকাল পৌনে চারটায় রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে এ বৈঠক হবে। শুক্রবার দিল্লিতে এক সংবাদ সম্মেলনে ভারতের পররাষ্ট্র সচিব সুব্রামানিয়াম জয়শঙ্কর এ বৈঠকের শিডিউলের কথা নিশ্চিত করেন। এদিকে বিএনপির তরফে বৈঠকের আলোচ্য বিষয় ও প্রতিনিধি দল সম্পর্কে গণমাধ্যমকে কিছুই জানানো হয়নি। তবে বিএনপির সূত্রে জানা গেছে, খালেদা জিয়ার  নেতৃত্বে বিএনপির শীর্ষ নেতাদের একটি প্রতিনিধি দল বৈঠকে অংশ নেবেন। প্রতিনিধি দলে থাকতে পারেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, তরিকুল ইসলাম, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহ, ড. আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, ভাইস চেয়ারম্যান শমসের মবিন চৌধুরী, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, রিয়াজ রহমান ও সাবিহউদ্দিন আহমেদ। সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে গত রাতেই প্রতিনিধি দলটি চূড়ান্ত করার কথা। বৈঠক হবে ২০ মিনিট দীর্ঘ। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বৈঠকে তিনটি বিষয়কে প্রাধান্য দেবে বিএনপি। প্রথমত. বাংলাদেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি ও সঙ্কটের কারণ ব্যাখ্যা, দ্বিতীয়ত. বাংলাদেশে গণতান্ত্রিক পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে জনগণের মতের প্রতিফলন নিশ্চিত করার মতো বিশ্বাসযোগ্য পন্থায় জাতীয় নির্বাচন আয়োজন এবং তৃতীয়ত. ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের আস্থার পরিবেশ সুদৃঢ় করা। বাংলাদেশের মানুষ যে কোন সুনির্দিষ্ট দলের সঙ্গে নয়, দু’দেশের জনগণের সঙ্গে জনগণের আস্থার সম্পর্ক বাস্তবভিত্তিতে সুদৃঢ় করার প্রত্যাশা মোদির কাছে তুলে ধরবেন খালেদা জিয়া। বৈঠকে ৫ই জানুয়ারি একতরফা নির্বাচনের পর দেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি তুলে ধরে বিএনপির তরফে মোদিকে জানানো হবে, একটি অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের জন্য দেশের জনগণ দীর্ঘদিন ধরে অপেক্ষা করছে। কিন্তু বর্তমান সরকার জনগণের দাবিকে কর্ণপাত না করে জোর করে ক্ষমতায় টিকে আছে। গণতন্ত্রের কোন স্পেস এখানে নেই। বিরোধী নেতা-কর্মীদের ওপর মামলা-হামলা, জুলুম-নির্যাতন চলছে। এ অবস্থায় আলাপ-আলোচনার মধ্য দিয়ে একটি নিরপেক্ষ জাতীয় নির্বাচনই চলমান রাজনৈতিক সংকট নিরসন করতে পারে। বাংলাদেশের চলমান সংকটাপন্ন রাজনৈতিক পরিস্থিতি থেকে গণতন্ত্রে উত্তরণে বড় প্রতিবেশী ভারতের সহযোগিতা চাইবে বিএনপি। এছাড়া সীমান্ত সমস্যার সমাধান হওয়ায় ভারতের প্রশংসা করবে বিএনপি। ক্ষমতায় আসার পর দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলো ঘিরে বিজেপি সরকারের ইতিবাচক রাজনীতির জন্য মোদির প্রশংসা করবেন বিএনপি চেয়ারপারসন। সেই সঙ্গে বাণিজ্য ঘাটতি কমানো, সীমান্তে হত্যা বন্ধ, কানেকটিভিটিকে আরও বাস্তবসম্মত, কার্যকর ও বিস্তৃত করা এবং তিস্তা চুক্তির ব্যাপারে কার্যকর উদ্যোগ নেয়ার দাবি জানাবে। বৈঠকে ভবিষ্যতে বিএনপি রাষ্ট্রক্ষমতায় গেলে দু’দেশের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট ইস্যুতে সবসময় সহযোগিতামূলক অবস্থান, উগ্রপন্থা দমনে একযোগে কাজ করা বিভিন্ন বিষয়ে সংক্ষেপে নিজেদের অবস্থান তুলে ধরবে বিএনপি। বাংলাদেশে নিখোঁজ হওয়ার দীর্ঘদিন পর ভারতের ভূখণ্ডে উদ্ধার হওয়া এবং বর্তমানে সেদেশে আদালতে মামলা মোকাবিলারত বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী সালাহউদ্দিন আহমেদকে ফিরে পেতে ভারত সরকারের সহযোগিতা চাইবেন বিএনপি নেতারা। পাশাপাশি সালাহউদ্দিনের গুমসহ রাজনৈতিক প্রতিকূল পরিস্থিতি নিয়েও আলোচনা হবে। সূত্র জানায়, বৈঠকের সময় সংক্ষিপ্ত হওয়ায় সার্বিক বিষয়াদি নিয়ে একটি বিশেষ ফাইল তৈরি করেছে বিএনপি। মুদ্রিত তথ্য-উপাত্ত ও ভিডিও চিত্রের সমন্বয়ে তৈরি করা এ ফাইলটি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কাছে হস্তান্তর করা হবে। এছাড়া বিএনপির তরফ থেকে মোদিকে কিছু উপহারও দেয়া হবে বলে জানা গেছে। বিএনপি নেতারা প্রত্যাশা করেন- নরেন্দ্র মোদি গণতন্ত্রের একজন প্রবক্তা। গণতান্ত্রিক স্বার্থ অক্ষুণ্ন রেখে বাংলাদেশে যাতে গণতান্ত্রিক সরকার প্রতিষ্ঠিত হয়, সে জন্য তিনি নিশ্চয়ই শিষ্টাচারের মধ্যে যতটুকু পড়ে ততটুকু করবেন। 

এ জাতীয় আরও খবর

দুদকের মামলা স্থগিতে বদির আবেদন খারিজ

সকালে তীব্র, দুপুরে সহনীয় যানজট

অর্থ আত্মসাৎ: নর্থ সাউথের চার ট্রাস্টিকে গ্রেফতারের নির্দেশ

‘মুজিব’ সিনেমার ট্রেলার দেখে সবাই কেন হতাশ তার কারণ পাচ্ছেনা পরিচালক

হয়রানির শিকার বলিউড অভিনেত্রী দিয়া মির্জা

অ্যান্থনি নরম্যান আলবানিজকে শেখ হাসিনার অভিনন্দন

উত্তরায় নারীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

আজ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির আবেদন শুরু

কাশিমপুর কারাগারে নারী হাজতির মৃত্যু

সিঙ্গাপুরের হেড কোচ হলেন সালমান বাট

ধানুশের আসল বাবা-মা নাকি তারাই! মানতে নারাজ অভিনেতা

পাকিস্তানি নারীর ‘প্রেমের ফাঁদে’ গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাচার, ভারতীয় সেনা গ্রেপ্তার