সোমবার, ১৫ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ৩১শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ইতিহাস গড়লো বাংলাদেশের মেয়েরা

45835_s1ক্রীড়া প্রতিবেদক :ফিফা র‌্যাঙ্কিয়ে জর্ডানের অবস্থান ৫৭। ২০১৬ সালের অনূর্ধ্ব-১৭ মহিলা বিশ্বকাপের স্বাগতিকও তারা। স্বাগতিক হিসেবে ওই টুর্নামেন্টে সরাসরি খেলবে জর্ডান। আর তার প্রস্তুতি হিসেবেই এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাইপর্বে অংশ নিচ্ছে দেশটি। এতে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার মন্ত্র নিয়েই ঢাকায় এসেছে তারা। জার্মানিতে প্রস্তুতি নেয়া জর্ডান দলের কোচ মানার মোস্তফা আহাম্মেদ আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার ঘোষণাও দেন। এসব কারণে ফিফা র‌্যাঙ্কিয়ে ১১৭তম স্থানে বাংলাদেশ বেশ সমীহ করেছিলো জর্ডান দলকে। একমাত্র সাক্ষাতে ৬-১ গোলে হারা দলটির বিরুদ্ধে বাংলাদেশের কোচ লক্ষ্য স্থির করেছিলেন ব্যবধান কমানোর দিকে। তবে গতকাল বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে একটি মুহূর্তও মনে হয়নি কোচের এমন নির্দেশে মাঠে নেমেছেন মনিকা, লিপিরা। শুরুর মিনিট থেকে বাংলাদেশ দলের খেলায় ছিলো আত্মবিশ্বাসের ছাপ। সেই আত্মবিশ্বাসই শেষ পর্যন্ত রূপ নেয় বাঁধভাঙা আনন্দে। জর্ডানকে ১-০ গোলে হারিয়ে চূড়ান্ত পর্বের মিশন শুরু করেছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশের হয়ে পেনাল্টি থেকে একমাত্র জয়সূচক গোলটি করেন সানজিদা আক্তার। কাল একই মাঠে বেলা পাঁচটায় আরব আমিরাতের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ।
চার/পাঁচ বছর ধরে দেশে মহিলা ফুটবলের চর্চা হচ্ছে। নিয়মিত আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টেও অংশ নিচ্ছে বাংলাদেশ মহিলা ফুটবল। আন্তর্জাতিক আসরগুলোতে জাতীয় দল সফলতা না পেলেও সাফল্য এনে দিচ্ছে বয়সভিত্তিক দল। গত বছর শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠিত এএফসি অনূর্ধ্ব-১৪ চ্যাম্পিয়নশিপেও বেস্ট রানার্সআপ হয় বাংলাদেশ। ওই দলের নয়জন ফুটবলার সুযোগ পেয়েছেন এবারের অনূর্ধ্ব-১৬ দলে। অভিজ্ঞ মনিকা, লিপিরা শুরু থেকেই নিয়ন্ত্রণ করতে থাকে বাংলাদেশের মধ্য মাঠ। ম্যাচের শুরু থেকেই প্রতিপক্ষকে চাপের মুখে রাখে তারা। প্রথমার্ধের প্রায় পুরোটা সময়ই নিজেদের অর্ধে লাল-সবুজের আক্রমণ প্রতিহত করতে ব্যস্ত থেকেছে জর্ডানের মেয়েরা। যে কারণে গোলের সুযোগ সৃষ্টি করতে পারেনি জর্ডান। বার বার জর্ডানের বিপদসীমানায় বল নিয়ে গেলেও স্কোরারের অভাবে গোলের দেখা পায়নি বাংলাদেশ। ৬৯ মিনিটে বাংলাদেশের লিপিকে নিজেদের বক্সে ফাউল করে জর্ডানের ডিফেন্ডার জেইনা আমজাদ। রেফারি পেনাল্টির নির্দেশ দেন। ম্যাচের ৭০ মিনিটে মিডফিল্ডার সানজিদা আক্তার চমৎকার শটে বল জালে জড়ান। শেষ পর্যন্ত আর কোন গোল না হওয়ায় স্বাগতিক বাংলাদেশ ১-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে।
এ জয়টাকে বাংলাদেশ মহিলা ফুটবলের ইতিহাস হিসেবেই দেখছেন দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন। ম্যাচ শেষে আপ্লুত ছোটন বলেন, ‘মাঠে নামার আগে আমি মেয়েদের বলেছি, তোমরা দেশের এবং তোমাদের বাবা-মায়ের জন্য খেলবে। মেয়েরা তাই করেছে। আমি একটি কথাই ওদের বার বার মনে করে দিয়েছি, জর্ডানের মেয়েরা ধনীর দুলালী। আর তোমরা কষ্ট করে এখানে এসেছো। প্রতিভা বিকাশের মঞ্চ এটি। কিছু করে দেখাও। সত্যি, মেয়েরা তাই করে দেখিয়েছে।’ বাংলাদেশের এমন জয়ের পেছনে ‘টিম বাংলাদেশ’ই কাজ করেছে বলে জানান ছোটন। তার কথায়, ‘সত্যি বলতে কি, আজ (গতকাল) বাংলাদেশের মেয়েরা একটি দল হিসেবেই খেলেছে। গোলকিপার থেকে শুরু করে স্ট্রাইকার, সব বিভাগই দুর্দান্ত খেলেছে।’
জয়সূচক গোল করা সানজিদা আক্তার বলেন, ‘পেনাল্টি শট নিতে গিয়ে আমি ভয় পাইনি। সব সময় যেদিক দিয়ে আমি শট নিয়ে থাকি সেদিক দিয়েই নিয়ে গোল পেয়েছি। জর্ডানের মতো দলকে আমার গোলেই হারাতে পেরে আমি খুব খুশি।’ এ বছর বঙ্গমাতা গোল্ডকাপে ময়মনসিংহের কলসিন্দুর উচ্চ বিদ্যালয়ের হয়ে পেনাল্টি থেকে এভাবেই গোল করে দলকে জিতিয়েছিলেন সানজিদা।
এদিকে বাংলাদেশের জয়টাকে সারপ্রাইজ হিসেবে দেখছেন জর্ডানের সহকারী কোচ হায়া এম কাতামি। নিজ দলের খেলা প্রসঙ্গে কোন কথা না বললেও কাতামি বাংলাদেশ অনেক এগিয়েছে বলে মন্তব্য করেন।

এ জাতীয় আরও খবর

দেশে বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড ঘটে না: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

মিসরে গির্জায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে নিহত ৪১

ফাঁস হওয়া গোপন ভিডিও নিয়ে যা বললেন অঞ্জলি

‘বালুখেকো’ সেলিমকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ

পাখির আঘাতে বিকল লন্ডনগামী বিমানের ফ্লাইট

বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়েতে বাসের ধাক্কায় নিহত ২

বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উজ্জীবিত বুয়েট শিক্ষার্থীরা

বুয়েটের আন্দোলনকারীরা শিবির: জয়

অনুশীলনে গুলিবিদ্ধ বিজিবি সদস্যের মৃত্যু

সরকারি চাকরিজীবীদের নির্বাচনে অংশগ্রহণ বিষয়ে করা রিট খারিজ

বঙ্গবন্ধু হত্যার বড় সুবিধাভোগী জিয়া ও তার পরিবার : তথ্যমন্ত্রী

আপনারা সবাই আমারে খায়া ফেললেন : পররাষ্ট্রমন্ত্রী