বৃহস্পতিবার, ১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফারুকী খুনের ঘটনায় আটক ৩

farokiচ্যানেল আইয়ের ইসলামিক অনুষ্ঠান ‘হজ্ব কাফেলা’ ও ‘শান্তির পথে’ অনুষ্ঠানের উপস্থাপক মাওলানা নুরুল ইসলাম ফারুকী খুনের ঘটনায় তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ।বুধবার দিবাগত রাতে নিহতের বাসা থেকে তাদের আটক করে শেরেবাংলা নগর থানায় নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।আটককৃতরা হলেন-রফিকুল ইসলাম, মো. শফিক ও মো. বেল্লাল।

জানা গেছে, নিহত ফারুকী আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাতের আন্তর্জাতিক সম্পাদক, ইসলামিক ফ্রন্টের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও হাইকোর্ট মাজার জামে মসজিদের খতিব ছিলেন। তার দুই স্ত্রী। প্রথম স্ত্রীর নাম আয়েশা। তিনি মগবাজারে থাকেন। তার দুই ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে। দ্বিতীয় স্ত্রীর নাম লুবনা। তিনি রাজাবাজার থাকেন।

নিহতের ভাগ্নে মারুফ জানান, রাত ৮টার দিকে রাজাবাজারে তার নিজ বাসায় দুই যুবক প্রবেশ করে। এ সময় কাজের মেয়ে শরিফা ও মারুফসহ আরো ৪ থেকে ৫ জন বাসায় ছিলেন। দুই যুবক বাসায় প্রবেশ করার পর পরই আরো ৫ থেকে ৬ যুবক প্রবেশ করে। ফারুকী তখন ড্রইং রুমে বসে ছিলেন। দুর্বৃত্তরা মুখোশ পরা ছিলেন। তারা ফারুকীকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ১ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। বাসার বাকি সদস্যদের অন্য আরেকটা রুমে বেঁধে রাখে। প্রতিবাদ করায় তারা ফারুকীকে হাত-পা বেঁধে ছুরিকাঘাত করলে তার মৃত্যু হয়।

তেজগাঁও জোনের উপ-পুলিশ কমিশনার বিপ্লব কুমার সরকার জানান, এটা জঙ্গীবাদী কোনো গোষ্ঠির কাজ হতে পারে। এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করা হয়েছে। আটককৃতরা জানিয়েছেন তারা হুজুরের সঙ্গে মাহফিলের বিষয়ে আলাপ করতে তার বাসায় এসেছিলেন। জিজ্ঞাসাবাদ চলছে।

কমলাপুর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব বলেন, উগ্রপন্থী ইসলামী দল ও জামায়াতে ইসলামী এ খুনের ঘটনায় জড়িত থাকতে পারে।

নিহতের লাশ সুরতহাল প্রতিবেদন শেষে ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।