বৃহস্পতিবার, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৩ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সেই শিউলির জন্য মহাসড়ক অবরোধ

Shewlyনিজস্ব প্রতিবেক: দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জাল ভোট দেয়ার অভিযোগে কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আওয়ামী লীগ নেত্রী শিউলি আজাদের কর্মী-সমর্থকরা মহাসড়ক অবরোধ করেছে। তারা ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে টায়ারে আগুন জ্বালিয়ে বন্ধ করে দেয় সব ধরণের যান চলাচল।

সংরক্ষিত মহিলা আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচনে সরাইল উপজেলা আওয়ামী লীগের ওই নেত্রীকে মনোনয়ন না দেয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে কর্মী-সমর্থকরা রাস্তায় নেমে আসে।

শনিবার বেলা সাড়ে ১১টায় বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে কর্ম-সমর্থকরা প্রথমে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে অবস্থান নেয়। পরে কুট্টাপাড়া এলাকায় টায়ারে আগুন জ্বালিয়ে মহাসড়ক অবরোধ করে।  

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, অবরোধের সময় ঢাকা-সিলেট ও কুমিল্লা-সিলেট মহাসড়কে সব ধরণের যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এর ফলে ঢাকা, সিলেট ও কুমিল্লাগামী অর্ধশতাধিক যানবাহন আটকা পড়ে। এতে মহাসড়কে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়।

প্রায় এক ঘণ্টা পর দুপুর সাড়ে ১২টায় উপজেলা প্রশাসনের অনুরোধে বিক্ষুব্ধরা অবরোধ তুলে নেয়। পরে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করে কর্মীরা। সেখানে আওয়ামী লীগ নেতা মো. জয়নাল উদ্দিন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ নেতাদের ২৪ ঘণ্টার আলটিমেটাম দিয়ে বলেন, ‘শিউলি আজাদকে মনোনয়ন দেয়ার বিষয়টি পুনর্বিবেচনা করা না হলে সোমবার সকাল-সন্ধা হরতাল ডাকা হবে।’

প্রসঙ্গত, দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ (সরাইল-আশুগঞ্জ) আসন থেকে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পান উম্মে ফাতেমা শিউলি আজাদ। পরে কেন্দ্র থেকে তাকে মনোনয়ন প্রত্যাহার করতে বলা হয়। নির্বাচনে এ আসনে বিজয়ী হন জাতীয় পার্টির অ্যাডভোকেট জিয়াউল হক মৃধা।

তবে গত ৫ জানুয়ারি ভোটগ্রহণকালে জাল ভোট দেয়ার দায়ে শিউলি আজাদ ও সরাইল উপজেলা যুবলীগ নেতা আশরাফ উদ্দিন মন্তু অভিযুক্ত হন। রাতে ভ্রাম্যমাণ আদালত তাদের ৫ বছর করে কারাদণ্ডাদেশ দেন। তবে পরে জামিনে মুক্তি পান শিউলি আজাদ।

এ জাতীয় আরও খবর