বুধবার, ২৪শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৯ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

লোকসভায় তেলেঙ্গানা বিল পাস

530356671c17f-Lok_Sabha_Parliament_অবশেষে লোকসভায় পাস হলো বিতর্কিত তেলেঙ্গানা বিল। এতে করে ভারতের অন্ধ্র প্রদেশ বিভক্ত হয়ে আলাদা তেলেঙ্গানা রাজ্য হওয়ার পথ একধাপ এগিয়ে গেল। তবে বিলটি পাসের সময় টিভি চ্যানেলের সরাসরি সম্প্রচার বন্ধ ছিল। খবর এনডিটিভির।



স্পিকার মীরা কুমার জানিয়েছেন, কারিগরি সমস্যার কারণেই এমনটা ঘটেছে। বিরোধী দল ভারতীয় জনতা পার্টির নেতা সুষমা স্বরাজ জানিয়েছেন, বিল পাসের সময় টিভির সরাসরি সম্প্রচার বন্ধ থাকার বিষয়টি তিনি জানতেন না। বিল পাসের সময় বিরোধী দল লোকসভা থেকে ওয়াকআউট করেননি।



রাজ্যসভায় বিলটি পাস হলে তেলেঙ্গানা পৃথক রাজ্য হিসেবে চিহ্নিত হবে। অন্ধ্র প্রদেশকে দুই টুকরো করে পৃথক তেলেঙ্গানা রাজ্য গঠনের সিদ্ধান্ত নিয়ে লোকসভা বেশ কিছুদিন থেকেই ছিল উত্তাল। সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) তেলেঙ্গানা বিল নিয়ে ভারতের লোকসভা আক্ষরিক অর্থেই রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। লোকসভায় মারধর করে, সেক্রেটারি জেনারেলের টেবিলের কাচ ভেঙে দিয়ে, স্পিকারের মাইক উপড়ে ফেলে এবং গোলমরিচের গুঁড়ো স্প্রে করে প্রতিবাদ জানিয়েছেন তেলেঙ্গানার বিরোধী সাংসদেরা। এতে লোকসভার অনেক সদস্য, কর্মী ও সাংবাদিক অসুস্থ হয়ে পড়েন।



পৃথক তেলেঙ্গানা রাজ্য করার দাবিতে পাঁচ দশক ধরে ভারতে আন্দোলন চলছে। এর ধারাবাহিকতায় ২০০৯ সালের ডিসেম্বর মাসে কেন্দ্রীয় সরকার আকস্মিকভাবে ঘোষণা দেয় নতুন তেলেঙ্গানা রাজ্য করার বিষয়টি অনুমোদন দেওয়া হচ্ছে। এর প্রতিবাদে অন্ধ প্রদেশের উপকূলীয় অঞ্চল ও রায়ালসীমা এলাকায় সহিংস বিক্ষোভ শুরু হলে সরকার পিছু হটে। গত ১৩ ফেব্রুয়ারি তুমুল হট্টগোলের মধ্যেই কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুশীল কুমার সিন্ধে দাবি করেন তিনি তেলেঙ্গানা বিলটি উত্থাপন করে দিয়েছেন। আজ এটি পাস হলো। তবে সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হওয়ার জন্য বিলটি রাজ্যসভায় পাস হতে হবে।