মঙ্গলবার, ৯ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২৫শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ভোট পড়েছে ১০ ভাগেরও কম: ফেমা

Fema দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ১০ শতাংশেরও কম ভোট পড়েছে বলে দাবি করেছে ফেয়ার ইলেকশন মনিটরিং অ্যালায়েন্স (ফেমা) ও বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন। নির্বাচনের পর গণমাধ্যমকে দেওয়া এক বিবৃতিতে ফেমা ও মানবাধিকার কমিশন এ তথ্য জানিয়েছে। ফেমার প্রধান মুনিরা খান জানিয়েছেন, রোববারের নির্বাচনে সব মিলিয়ে ১০ শতাংশেরও কম ভোটার ভোট দিয়েছেন। গণমাধ্যমকে দেওয়া এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, ‘আমি নিজে রাজধানীর বেশ কয়েকটি ভোটকেন্দ্রে গিয়ে খুব কম ভোটারের উপস্থিতি দেখেছি। এছাড়া দেশের বিভিন্ন স্থানে আমাদের পর্যবেক্ষকরা যেসব খবর দিয়েছেন তাতেও ১০ শতাংশের কম ভোট পড়েছে বলে জানা গেছে।’ তিনি আরও বলেন, ‘রাজধানীর অনেক কেন্দ্রে উপস্থিত পোলিং এজেন্টও জানাতে পারেননি তিনি কোন প্রার্থীর পোলিং এজেন্ট। অন্যদিকে, দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গড়ে ১০ শতাংশ ভোট পড়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন। কমিশনের পরিচালক অ্যাডভোকেট এ কে আজাদ স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে বলা হয়, ভোটকেন্দ্রগুলোতে ভোটার ছিল খুবই স্বল্পসংখ্যক। বেশিরভাগ ভোটকেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি ছিল শতকরা শূন্য ভাগ থেকে ১০ ভাগ পর্যন্ত। কিছু কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন দলের মনোনীত প্রার্থী ও তাদের বিদ্রোহী প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করলেও ওইসব আসনে সর্বোচ্চ ২০ থেকে ২৫ ভাগের বেশি ভোট পড়েনি। কমিশনের বিবৃতিতে বলা হয়, ১০ ভাগ ভোটার উপস্থিতির নির্বাচনকে প্রকৃতপক্ষে নির্বাচন বলা যায় না। এজন্য তারা অবিলম্বে এ নির্বাচন বাতিল করে সব দলের অংশগ্রহণে নতুন তফসিল দেওয়ার দাবি জানান। আগেই নির্বাচিত ১৫৩ আসনের ফলও বাতিলের দাবি জানান তারা।

 

(ঢাকাটাইমস/৬জানুয়ারি/এমএম)

এ জাতীয় আরও খবর