বৃহস্পতিবার, ২রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

আওয়ামীলীগ আমলেই ব্যাবসায়ীদের সর্বচ্চো অধিকার সুপ্রতিষ্ঠিত হয়েছে ব্যবসাবান্ধব পরিবেশ অক্ষুন্ন রাখতে রাখতে নৌকায় ভোট দিন

news-image

আওয়ামীলীগ আমলেই ব্যাবসায়ীদের সর্বচ্চো অধিকার সুপ্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এই সরকার ব্যবস্যা বান্ধব সরকার উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রীর সাবেক একান্তসচিব বিশিষ্ট লেখক, আলোচক, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর-৩ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় কার্য নির্বাহী কমিটির অন্যতম নেতা, যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা জননেতা র.আ.ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি বলেছেন, আওয়ামীলীগ দেশে ব্যবসায় বানিজ্যর প্রসারের জন্য কাচামাল উৎপাদন, নতুন নতুন শিল্প কারখানা তৈরী করেছে। বিদেশ থেকে অত্যাধুনিক যন্ত্রপাতি আমদানি, ব্যাবসায়ি পন্য স্থান্তরের জন্য যানবাহন ও রাস্তা উন্নয়ন করেছে। সুবিধা জনক DSC06582ব্যাংক ঋণ সহ দেশী পন্যর আন্তর্জাতিক বাজার সৃষ্টিতে প্রয়াশ চালিয়েছে। সন্ত্রাস ও চাদাবাজ মুক্ত ব্যাবসা বান্ধব পরিবেশ সুনিশ্চত করেছে। শিল্প উন্নত যুগে শিল্প কারখানার ৃপ্রধান নিয়ামক বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়িয়ে লোডশেডীং শতভাগ কমিয়ে আনা এই সরকারের একটি যুগান্তকারী সাফল্য।উবায়দুল মোকাদির চৌধুরী আসন্ন দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সড়ক বাজারে সাধারণ ব্যবসায়ী বৃন্দের উদ্দ্যেগে আয়োজিত নির্বাচনি জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরক্ত কথা বলেন। বিএনপি জামাত জোট প্রধান মন্ত্রীর আলোচনার প্রস্তাব কে প্রত্যাখান করে হরতালর অবরোধ, ভাঙ্গচুর,লুট-পাট, মানুষ হত্য মাধ্যমে জনমনে ভিতি সঞ্চার করে, দেশে অরাজকতা সৃষ্টি করে চরছে। তার মুষ্ঠিমেয় মানুষ সন্ত্রাস নৈরাজ্য করে সংবিধান ও গনতন্তের ধারাবাহিকতা রক্ষায় জনতার দাবি নির্বাচন কে বানচাল করতে চায়। টানা হরতার অবরোধে ব্যবসার পরিবেশ কে নষ্ট করছে। দেশের খেটে খাওয়া মানুষের আজ করুন দশা। দেশের স্বাধীনতা ও উন্নয়ন বিরোধী এই চক্র সাধারন মানুষ কে জিম্ম করে বাঁকা পথে ক্ষমতায় আসতে চায়। তিনি বলেন বিএনপি আবারও ক্ষমতায় এলে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বন্ধ করে দিবে। দেশের চলমান উন্নয়ন কে বাধাগ্রস্থ করবে। তাই ব্যবসায়ীদের স্বার্থ রক্ষা করতে হলে বিএনপি জামাতের সকল ষড়যন্ত্র কে মোকাবেলা করে আগামী নির্বাচনে বিজয় অর্জন করতে হবে। বক্তব্যে তিনি অতিতের মত ভবিষ্যতেও নৌকার পক্ষে কাজ করার জন্য ব্যবসায়ীদের প্রতি আহবান জানান। জনসভায় সড়ক বাজার ব্যাবসায়ী কমিটির সভাপতি আলহাজ মো আব্দুল হান্নান এর সভাপত্তিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি, পৌর মেয়র মোঃ হেলাল উদ্দিন, যুগ্ন সম্পাদক সাবেক পৌর চেয়াম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ জাতীয় পরিষদ সদস্য বীরমুক্তিযোদ্ধা শেখ কুতুব হোসেন, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ হেলাল উদ্দিন, মজিবুর রহমান বাবুল, জেলা আওয়ামীলীগের ত্রান ও পূর্নবাসন সম্পাদক ও জেলা চেম্বার অব কমার্স এর সভাপতি মোঃ তানজিল আহমেদ, জেলা যুবলীগ সভাপতি এডঃ মাহবুবুল আলম খোকন, শহর সাধারণ সম্পাদক মো রফিকুল ইসলাম, জেলা চেম্বারের সাবেক সভাপপতি মোঃ আজিজুল হক, জগত বাজার ব্যাবসায়ি কমিটির সভাপতি ও জেলা চেম্বার পরিচালক হাজী মোঃ শাহজাহান মিয়া, মোঃ মামুন, জাকিরুল ইসলাম শফিক। সভায় জেলা আওয়ামীলীগের উপ দফতর সম্পাদক ও জেলা হোটেল রেস্তরা মালিক সমিতির সভাপতি আলহাজ মোঃ শাহ আলম এর পরিচালনায় স্থানীয় ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন। সভায় বিশেষ অতিথি পৌর মেয়র মোঃ হেলাল উদ্দিন তার বক্তব্যে বলেন, দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ত, গণতন্ত্র ও উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় নৌকা মার্কার বিকল্প নেই। আওয়ামীলীগ যতবার দেশের শাসন ক্ষমতায় এসেছে তত বারই দেশের উন্নয়ন হয়েছে। অপর দিকে বিএনপি ক্ষমতায় এসে দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্তকে ভুলন্ঠিত করেছে। দেশের মানুষ কে সন্ত্রাস, দূর্নীতি আর জঙ্গিবাদ উপহার দিয়েছে। তিনি বলেন দেশ ও মানুষের স্বার্থে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা ও প্রধান মন্ত্রীর শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ গঠন করতে হবে। তাই মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উবদ্ধ হয়ে আওয়ামীলীগের নেতা কর্মীদের রাজপথে বিএনপি জামাতের ষড়যন্ত্র মোকাবেলো করতে হবে। তিনি ব্রাহ্মণবাড়িয়া চলমান উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আগমী নির্বাচনে  উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী কে নৌকা প্রতিকে ভোট দিতে সকলের প্রতি আহবান জানান। সভায় সড়ক বাজার, জগৎবাজার, আনন্দন বাজার, টান বাজর, লাখীবাজার, খালপাড়, মসজিদ রোড, কোট রোড, সুপার মার্কেট, নিউ মার্কেট, হকার্স মার্কেট এর ব্যবসায়ীবৃন্দ ও জেলা আওয়ামীলীগের অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ে নেতা কর্মী বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।