বৃহস্পতিবার, ২রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় স্নাতক (সম্মান) পড়া যায়

বাউবিতে অনার্স পড়া যায় তা দেশে অনেকেরই হয়তো জানা নেই। যারা জানতে পারেননি তাদের জন্য সংক্ষেপে কিছু কথা। উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় মানে শুধু দূরশিক্ষণ পদ্ধতির শিক্ষা নয়। দূর এবং সম্মুখ উভয় পদ্ধতির শিক্ষাই এতে নেয়ার বিষয়টি উন্মুক্ত রাখা হয়েছে।

১৯৯২ সালে বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাউবি) যাত্রা শুরু হয়েছে। প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে এ বিশ্ববিদ্যালয়টি শিক্ষাবিষয়ক বিভিন্ন কার্যক্রম চালু করে আসছে। সর্বশেষ ২০১১ সাল থেকে স্নাতক (সম্মান) কোর্সে শিক্ষার্থী ভর্তির কার্যক্রম শুরু হয়েছে। প্রথাগত দূরশিক্ষণ থেকে কিছুটা ভিন্নতার সংযোজন ঘটিয়ে বাউবির সামাজিক বিজ্ঞান, মানবিক ও ভাষা অনুষদে ইতিহাস, দর্শন, রাষ্ট্রবিজ্ঞান, সমাজতত্ত্ব ও ইসলামিক স্টাডিজ বিষয়ে স্নাতক সম্মান প্রোগ্রামে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হচ্ছে। চলতি ২০১৩-১৪ শিক্ষাবর্ষে এর সঙ্গে যুক্ত হয়েছে বাংলা ভাষা ও সাহিত্য বিষয়টি। এরই মধ্যে এসব বিষয়ে তিনটি ব্যাচে প্রায় পাঁচশতাধিক শিক্ষার্থী বাউবিতে স্নাতক সম্মান পড়তে শুরু করেছে।
বাউবিতে অনার্স পড়া যায় তা দেশে অনেকেরই হয়তো জানা নেই। যারা জানতে পারেননি তাদের জন্য সংক্ষেপে কিছু কথা। উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় মানে শুধু দূরশিক্ষণ পদ্ধতির শিক্ষা নয়। দূর এবং সম্মুখ উভয় পদ্ধতির শিক্ষাই এতে নেয়ার বিষয়টি উন্মুক্ত রাখা হয়েছে। দুনিয়াব্যাপী তাই হচ্ছে। বাংলাদেশে শুরুতে কেবলি দূরশিক্ষণের প্রোগ্রামগুলো চালু করায় সব মহলের মধ্যে এমন এক রৈখিক ধারণা জায়গা করে নিয়েছে। এমন ধারণা থেকে বের হয়ে বিশ্ববিদ্যালয়টি এর সম্ভাবনার অন্য দিকটিও কাজে লাগাতে সরাসরি পাঠদান পদ্ধতি চালু করেছে। তবে অন্যান্য পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পার্থক্য শুধু একটিই-তা হচ্ছে এ বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে বয়স, নিয়মিত, অনিয়মিত ছাত্র হওয়ার ক্ষেত্রে কোনো আইনগত বাধ্যবাধকতা নেই। ফলে নিয়মিত ছাত্রছাত্রীর সঙ্গে কর্মজীবী-অকর্মজীবী যে কোনো বয়সের নারী-পুরুষ যে কেউ ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে স্নাতক সম্মান প্রোগ্রামে ভর্তি হতে পারেন। উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় প্রতি শুক্র ও শনিবার ঢাকা আঞ্চলিক কেন্দ্রের শ্রেণিকক্ষে পাঠদানের ব্যবস্থা রেখেছে। এতে বাউবির শিক্ষকরা ছাড়াও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় এবং জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট বিষয়ের অভিজ্ঞ শিক্ষকরা অতিথি শিক্ষক হিসেবে পাঠদানে যুক্ত থাকেন। সপ্তাহের দুদিন নিবিড় পাঠদানের মাধ্যমে শিক্ষকরা পাঠক্রম শেষ করার পর যথনিয়মে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। কোর্স কারিকুলামও দেশ-বিদেশের অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে প্রণয়ন করা হয়েছে। ফলে মানের কোনো ঘাটতি নেই, পাঠদান ছাড়াও অডিও-ভিডিওর সুবিধা শিক্ষার্থীদের জন্য রয়েছে। অদূর ভবিষ্যতে গাজীপুরের একাডেমিক ভবনের নির্মাণ কাজ শেষ হলে বাউবি নিয়মিত এবং অনিয়মিতদের জন্য আলাদা শাখা করেও ব্যাপকসংখ্যক ছাত্রছাত্রীর স্নাতক সম্মান ডিগ্রি করার চাহিদা পূরণ করতে পারবে বলে আশা করা যাচ্ছে। আগ্রহী যে কোনো শিক্ষার্থী বিনংরঃব (িি.িনড়ঁ.বফঁ.নফ) থেকে তথ্যাদি সংগ্রহ করতে পারবে। বর্তমান শিক্ষা বছরে ভর্তির ফরম আগামী ১১ ডিসেম্বর পর্যন্ত সংগ্রহ করা যাবে। ২৭ ডিসেম্বর ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। আসছে জানুয়ারিতে শুরু হবে ক্লাস। উলি্লখিত বিষয়গুলোয় স্নাতক সম্মান পড়তে আগ্রহী ছাত্রছাত্রীরা বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হওয়ার সুযোগটি নিতে পারে।