মঙ্গলবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ ১১ই আশ্বিন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

চবির সোহরাওয়ার্দী হলে শিক্ষার্থীদের তালা

news-image

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক : খাবারের নিম্নমান, রিডিং রুমের অভাবসহ ১২ দফা দাবিতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) সোহরাওয়ার্দী হলে তালা দিয়েছেন আবাসিক শিক্ষার্থীরা।

সোমবার (২৮ আগস্ট) সকালে হলের প্রধান ফটকে তালা ঝুলিয়ে অবস্থান নেন তারা। এসময় তাদের প্ল্যাকার্ড হাতে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়।

দাবিগুলো হলো, হলের অনেক রুমে খাট, টেবিল, চেয়ার ও আলমারির সংকট নিরসন। দীর্ঘদিন ধরে চলা হলের রাস্তার সংস্কার কর্মকাণ্ডের দ্রুত সমাপ্তি। ডাইনিং এবং ক্যাফেটেরিয়ার খাবারের মান বৃদ্ধি করতে হবে। হলে পর্যাপ্ত সুপীয় পানির সংকট দ্রুত দূর করতে হবে। হলে নিরবিচ্ছিন্ন ওয়াইফাই সংযোগের ব্যবস্থা করতে হবে। হলের ওয়াশরুমের সমস্যার দ্রুত সমাধান করতে হবে। হলে মাঠের সংস্কার এবং দ্রুত খেলাধুলার সরঞ্জামের অপ্রতুলতা নিরসন করতে হবে। শিক্ষার্থীদের চলাচলের নিরাপত্তার জন্য হলের সামনের রাস্তায় স্পিড ব্রেকার স্থাপন করতে হবে। রিডিং রুমে পর্যাপ্ত বই, চেয়ার, টেবিল ও নিরবচ্ছিন্ন আলো ও ফ্যানের ব্যবস্থা করতে হবে। টিভির রুমের বেঞ্চ ও গেস্ট রুমের সোফার সংকট নিরসন করতে হবে। হলের পানির হাউজ ব্যবহারের উপযোগী করতে হবে এবং পুরাতন ভবনে শিক্ষার্থীদের জীবনের হুমকি রয়েছে তাই নতুন এক্সটেনশন নির্মাণ করতে হবে।

হলের আবাসিক শিক্ষার্থী আলম নুর বলেন, সোহরাওয়ার্দী হল বিশ্ববিদ্যালয়ের পুরনো হলের মধ্যে একটি। এছাড়া এখানে সিটের তুলনায় বেশি শিক্ষার্থী কষ্ট করে বসবাস করে। অথচ কোনো প্রকার সুযোগ-সুবিধা নেই। প্রায় সব জিনিসই সমস্যা। দীর্ঘদিন ধরে বলে আসলেও এর প্রতিকার নেই। আমরা এর দ্রুত সমাধান চাই।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর আহসানুল কবীর পলাশ বলেন, আমরা শিক্ষার্থীদের দাবির বিষয়ে শুনেছি। তাদেরকে লিখিত দিতে বলা হয়েছে। এছাড়া হল প্রাধ্যক্ষের সঙ্গে বসে সমস্যার সমাধানে আমরা কাজ করব। আশাকরি দ্রুত সম্ভব শিক্ষার্থীরা তাদের দাবিগুলোর বাস্তবায়ন দেখতে পাবে।