সোমবার, ১৬ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২রা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

প্রথমার্ধে গোলশূন্য বাংলাদেশ

news-image

স্পোর্টস ডেস্ক : নেপাল রক্ষণে চাপ তৈরি করে খেললেও প্রথমার্ধে গোলশূন্য থেকে গেছে বাংলাদেশ। নাবিব নেওয়াজ জীবন, সাদ উদ্দিন, সুমন রেজারা একাধিক সুযোগ তৈরি করেছেন। কিন্তু ফিনিশিং দুর্বলতায় আসল কাজ গোলটাই হয়নি।

মঙ্গলবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বিকেল ৫টায় শুরু হয় ম্যাচটিতে এখন মধ্য বিরতি চলছে।

‘মুজিববর্ষ ফিফা আন্তর্জাতিক ফুটবল সিরিজ’ এর প্রথম ম্যাচটা বাংলাদেশ জিতেছে ২-০ গোলে। জীবন-সাদরা খেলেছেন মনে রাখার মতো ফুটবল। এদিন শুরু থেকেই বাংলাদেশ দলের মধ্যে আগের ম্যাচের ছন্দটাই খুঁজে পাওয়া গেল। কিন্তু গোল হলো না কিছুতেই। যার দায় এড়াতে পারেন না ফরোয়ার্ডরা।

এদিন ম্যাচের প্রথম মিনিটেই ডানপ্রান্ত দিয়ে দারুণ এক আক্রমণ তৈরি করে বাংলাদেশ। জীবন-সাদের বোঝা থেকে তৈরি হওয়া আক্রমণ সঠিক ঠিকানা পায়নি।

পঞ্চম মিনিটে বিশ্বনাথ ঘোষের লম্বা থ্রো থেকে ডি বক্সে জটলায় ভালো সুযোগ তৈরি হলেও স্বাগতিকদের কেউ ফিনিশিং করতে পারেনি।

২০ মিনিটে জীবনের ভালো ক্রসও বিফলে যায়। ২৩ মিনিটে জীবনের বাড়ানো পাস ধরে ডি-বক্সের বাইরে থেকে দারুণ এক শট নেন সুমন রেজা। কিন্তু পোস্টের ওপর দিয়ে চলে যায় সেটি। ৩১ মিনিটে ডি-বক্সে ভালো সুযোগ পেলেও ফিনিশিং দিতে পারেননি সুমন রেজা।

বাংলাদেশের মতো প্রাধান্য বিস্তার করতে না পারলেও নেপালও কয়েকটার বাংলাদেশ রক্ষণে চাপ তৈরি করে। তবে কোনো বিপদ ঘটেনি।

প্রথম ম্যাচের একাদশে এদিন দুটি পরিবর্তন নিয়ে মাঠে নামে বাংলাদেশ। একাদশে ঢোকেন এক নম্বর গোলরক্ষক আশরাফুল ইসলাম রানা ও ডিফেন্ডার ইয়াসিন খান। রানা প্রথম ম্যাচের স্কোয়াডে ছিলেন না। পোস্টের নিচে ছিলেন আনিসুর রহমান জিকো। বেঞ্চে ছিলেন শহিদুল আলম সোহেল। চোটের কারণে সোহেল অবশ্য ছিটকে গেছেন।

জিকোকে বাইরে রেখে প্রথম ম্যাচে বিশ্রামে থাকা রানাকেই একাদশে ফিরিয়েছেন জেমি ডের পরিবর্তে কোচের দায়িত্বে থাকা স্টুয়ার্ট ওয়াটকিস। অন্যদিকে প্রথম ম্যাচে ইয়াসিন খেলেছিলেন বদলি হিসেবে। এদিন রিয়াদুল হাসানের বদলে প্রথম একাদশে এসেছেন তিনি।

বাংলাদেশ একাদশ:

আশরাফুল ইসলাম রানা, তপু বর্মণ, বিশ্বনাথ ঘোষ, রহমত মিয়া, ইয়াসিন খান, জামাল ভূঁইয়া, মানিক মোল্লা, ইব্রাহিম, সাদ উদ্দিন, নাবিব নেওয়াজ জীবন ও সুমন রেজা।