মঙ্গলবার, ৪ঠা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৯শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

আশুগঞ্জ সার কারখানায় ৫০ কেজি সারের বস্তায় ৪৫ কেজি সার

fertilizerবার্তা কক্ষঃব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ সার কারখানায় আমদানি করা ইউরিয়া সারের বস্তায় ওজনে কম পাওয়া গেছে। ৫০ কেজির প্রতি বস্তায় ৫ কেজি পর্যন্ত সার কম রয়েছে। মঙ্গরবার জাহাজ থেকে সার নামাতে গিয়ে তা ধরা পড়ে। এ জন্য সার নামানো বন্ধ রেখেছেন কারখানা কর্তৃপক্ষ। তবে এসব সার কারখানা অধীনস্থ ৮ জেলার ডিলারদের সরবরাহ অব্যাহত রেখেছে কর্তৃপক্ষ। এ ব্যাপারে ডিলারগন বার বার কারখানা কর্তৃপক্ষ ও জেলা প্রশাসনকে বলেও কোন প্রতিকার পাচ্ছে না। আর এসব সার কিনে লোকসান গুনতে হচ্ছে খুচরা বিক্রেতাদের এবং প্রতারনার শিকার হচ্ছেন সাধারণ কৃষক। এ ব্যাপারে দ্রুত পদক্ষেপ না নিলে কারখানা থেকে সার নেওয়া বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি দিয়েছে ডিলারগণ। কারখানার বাণিজ্যিক বিভাগ সূত্রে জানা যায়, গ্যাস সংকটের কারণে গত ১৭মার্চ থেকে উৎপাদন বন্ধ থাকায় গত ২/৩ মাস যাবত ডিলারদের বিদেশ থেকে উচ্চ মূলে আমদানি করা ইউরিয়া সার সরবরাহ করা হচ্ছে। আরব গালফ থেকে আমদানি করা এসব খোলা সার চট্রগ্রামে বস্তাবন্দি করার পর জাহাজের মাধ্যমে আশুগঞ্জ সরবরাহ করা হচ্ছে। এসব সারের বস্তায় ওজনে কম থাকার বিষয়টি ডিলাদের একাধিকবার আপত্তির পর গত সোমবার কারখানায় কয়েকটি বস্তা মেপে দেখা হয়। এক থেকে পাঁচ কেজি পর্যন্ত কম পেয়ে তাৎক্ষণিক ভাবে আমদানি করা সার জাহাজ থেকে আনলোড বন্ধ করে দেয় কারখানা কতৃপক্ষ। এতে করে কারখানা নদীর ঘাটে প্রায় ৪ হাজার টন সার নিয়ে আটকা পড়েছে ৫টি কার্গো জাহাজ।

এ জাতীয় আরও খবর