শনিবার, ২৫শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১১ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ওবামাকে কারজাইয়ের ‘না’

মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার সঙ্গে বাগরাম বিমানঘাঁটিতে সাক্ষাতের এক আমন্ত্রণ ফিরিয়ে দিয়েছেন আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট হামিদ কারজাই। কারজাই জানান, বাগরামে নয়, প্রথা অনুসারে তিনি কাবুলেই মার্কিন প্রেসিডেন্টকে উষ্ণ অভ্যর্থনা জানাবেন।



নিউইয়র্ক টাইমস-এর প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে পিটিআইয়ের খবরে জানানো হয়, গতকাল হামিদ কারজাই ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির শপথ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে নয়াদিল্লি যান। এ সময় মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার পক্ষ থেকে তাঁকে জানানো হয়, ওবামা বাগরাম বিমানঘাঁটিতে কারজাইয়ের সঙ্গে দেখা করতে চান। সেখানে দ্বিপক্ষীয় বিষয়ে তিনি কারজাইয়ের সঙ্গে আলোচনা করতে চান। এত কম সময়ের মধ্যে কারজাইয়ের পক্ষে বাগরামে যাওয়া সম্ভব হবে কি না, তা নিয়ে তাঁদের মধ্যে সংশয় রয়েছে। কারজাইয়ের কার্যালয় থেকে জানানো হয়, তিনি 

আফগানিস্তানের প্রথা অনুসারে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টকে উষ্ণ অভ্যর্থনা জানাতে প্রস্তুত। বাগরামে ওবামার সঙ্গে দেখা করার কোনো ইচ্ছা তাঁর নেই।



খবরে জানানো হয়, সম্প্রতি বারাক ওবামা ও হামিদ কারজাইয়ের মধ্যে সম্পর্ক অনেকটাই শীতল। হোয়াইট হাউসের প্রস্তাবিত দ্বিপক্ষীয় নিরাপত্তা চুক্তি কারজাই প্রত্যাখ্যান করার পর থেকে তাঁদের সম্পর্কে ভাটা পড়ে। ওই চুক্তিতে কারজাই রাজি হলে আফগান সেনাদের প্রশিক্ষণে মার্কিন সেনারা সে দেশে আরও কিছুদিন থাকতে পারত।



মার্কিন কর্মকর্তারা জানান, আফগানিস্তান ছাড়ার আগে ওবামা কারজাইয়ের সঙ্গে টেলিফোনে ১৫ থেকে ২০ মিনিট কথা বলেন। আফগানিস্তানের নিরাপত্তা বাহিনীর উন্নয়ন ও দেশে সাধারণ নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে হওয়ায় তিনি কারজাইয়ের প্রশংসা করেন।



গতকাল আফগানিস্তানে আকস্মিক সফরে ওবামা সে দেশের সেনাদের উদ্দেশে যে বক্তব্য দেন, এতে এটা স্পষ্ট যে তিনি এখনো দ্বিপক্ষীয় নিরাপত্তা চুক্তি চান। চলতি বছর আফগানিস্তানে ছোট পরিসরে মার্কিন সেনা মোতায়েনের ইচ্ছা প্রকাশ করে ওবামা বলেন, আফগানিস্তানের নতুন প্রেসিডেন্ট শপথ নেওয়ার পরে দ্বিপক্ষীয় নিরাপত্তা চুক্তি সই করা সম্ভব বলে তিনি আশাবাদী।



গতকাল সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা আকস্মিক সফরে আফগানিস্তান যান। তিনি সেখানে দীর্ঘদিন ধরে চলা যুদ্ধে অবদান রাখায় মার্কিন সেনাদের অভিবাদন জানান। সেনাদের উদ্দেশে ভাষণ দেন। ওবামা ওয়াশিংটন থেকে বিশেষ বিমানে সরাসরি আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের বাইরে বাগরাম বিমানঘাঁটিতে যান।



যুদ্ধে নিহত মার্কিন সেনাদের স্মৃতির উদ্দেশে যুক্তরাষ্ট্র ‘মেমোরিয়াল ডে’ পালন করবে আজ৷ দিনটিকে সামনে রেখে ওবামা কড়া নিরাপত্তার মধ্যে গতকাল আফগানিস্তান যান। সেখানে মার্কিন সেনাদের সঙ্গে কিছুটা সময় কাটান ওবামা।

এ জাতীয় আরও খবর