বুধবার, ৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ধোনির সঙ্গে সাকিবের অনেক মিল!

image_88057.sakসাকিবের জয়-জয়কার নিয়ে ভারতীয় বার্তা সংস্থা আনন্দবাজার একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। সেখানে বাংলাদেশি অল-রাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে তারা ভারত ক্রিকেট দলের অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির সঙ্গে তুলনা করেছেন অনেকাংশে। পাশাপাশি বাংলাদেশি মিডিয়ার সঙ্গে সাকিবের 'শীতল' সম্পর্ক নিয়েও আলোকপাত করা হয়েছে।
আনন্দবাজারের ওই রিপোর্টে লেখা হয়েছে, "সাকিবের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে শেষ চারে কলকাতা। আস্থার প্রতিদান দিচ্ছেন সাকিব। শুক্রবার সকালে ঘুম থেকে উঠে সাকিব আল হাসান ইন্টারনেটে দেশের কাগজের শিরোনামগুলো দেখলেন কি না কে জানে। একটা ব্যাপারে শুধু নিশ্চিত হওয়া গেল। বাংলাদেশ মিডিয়া থেকে তাঁর কাছে কোনো ফোন আসেনি। কারণ, কলকাতার নম্বরই সাকিব কাউকে দেননি! নিজ দেশের মিডিয়ার সঙ্গে তাঁর 'সুসম্পর্কে'র কথা পদ্মা পেরিয়ে কলকাতার মিডিয়াকুলেও এখন সবাই জানেন। শোনা যায়, সাকিব আল হাসানের এক নম্বর 'শত্রু' বলে যদি কেউ থেকে থাকে, তাহলে সেটা বাংলাদেশ মিডিয়া! আর এ কারণেই মহেন্দ্র সিং ধোনির সঙ্গে সাকিবের কয়েকটা জায়গায় মিল আছে। মহেন্দ্র সিংহ ধোনি অনেক বিত্তবান। সাকিবও বাংলাদেশ ক্রীড়াবিদদের মধ্যে সবচেয়ে ধনী। ধোনি ভারতের ম্যাচ উইনার, সাকিব বাংলাদেশের এবং মিডিয়ার বড় অংশের সঙ্গে ধোনির 'শীতল' সম্পর্ক রাখার যে প্রবণতা, সাকিবের মধ্যেও তা সমান বিদ্যমান। যদি বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় থেকে দেশে ঘটে যাওয়া বিবিধ ঘটনার সন্ধান পেয়ে থাকেন কেকেআর অল-রাউন্ডার সাকিব, তবে নিঃসন্দেহে খুশি হবেন। বাংলাদেশে ফোন করে যা জানা গেল। বিশ্বকাপ ফুটবল থেকে মন সাময়িক সরেছে বাংলাদেশ জনতার। সিএসকে ও আরসিবি ম্যাচে তাঁর ব্যাটিং বিস্ফোরণের পর ব্রাজিলমুখী বাংলাদেশ জনতা আবার সাকিবমুখী। মিডিয়া আপাতত 'যুদ্ধবিরতি'র পথে। বলা হচ্ছে, সাকিব ডিপ্লোম্যাসির ধার ধারেন না, তাই মিডিয়ার সঙ্গে মাঝেমধ্যে লেগে যায়। কিন্তু পারফর্মার সাকিবকে বরাবর সম্মান করে বাংলাদেশ মিডিয়া। তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেটের সেরা পারফর্মার ছিলেন, আছেন, থাকবেন। ওপারের আমজনতা, ক্রিকেট মহলের মতো কূটনৈতিক জগতও সাকিবে বিভোর। শোনা গেল, শুক্রবার ভারতীয় হাইকমিশনের সঙ্গে প্রদর্শনী ম্যাচ ছিল বাংলাদেশ স্পোর্টস জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের। খেলার শেষে বাংলাদেশ স্পোর্টস জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশন জিতে যাওয়ায় প্রতিপক্ষের সরস মন্তব্য এসেছে, "বাহ্, ওদিকে সাকিব জেতাতে শুরু করল, আর আপনারাও জিততে শুরু করলেন। কোনোবারই তো জেতেন না!"
শুনলে আশ্চর্যই লাগবে। যে বাংলাদেশ জনতা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে টিমের বিশ্রী পারফরম্যান্সের পর সাকিবকে দুরছাই করেছে, সেই জনতাই নাকি বর্তমানে আক্ষেপ করছে। আক্ষেপের কারণ রবিন উথাপ্পা! বলা হচ্ছে, সাকিব যেদিন রান করছেন, অল-রাউন্ড পারফর্ম করছেন, সেদিন উথাপ্পাও কিছু না কিছু করে দিচ্ছেন। কৃতিত্ব সাকিবের কখনও একক থাকছে না। কেকেআর যা মানে না। টিমের সঙ্গে যুক্ত কেউ কেউ বলছেন, উথাপ্পা ওপেনে এসে অবিশ্বাস্য ফর্ম দেখাচ্ছেন, টিমকে জেতাচ্ছেন, ঠিক। কিন্তু সাকিবের গুরুত্ব অন্যরকম। বল হাতে মাঝে মাঝে তিনি সুনীল নারাইনের চেয়েও কৃপণ। আগে প্রতিপক্ষকে নারাইনের চারটে ওভার দেখে খেলতে হত, এখন সাকিবেরও হচ্ছে। প্লাস, মিডল অর্ডারকে নির্ভরতা দেওয়া। সিএসকে এবং আরসিবি দুইটি ম্যাচে সাকিব শুধু মিডল অর্ডারকে নির্ভরতা দেননি, খুনে ব্যাট করে ম্যাচ অনেক আগে শেষ করে দিয়েছেন।
যে প্রসঙ্গ উত্থাপনে মগুরার ছেলে সাকিব হাসেন। তিনি বলেন, "আমার কাজটাই তাই। ব্যাট ও বল দুটিই ভালো করে করতে হবে। রবিনের সঙ্গে গতকাল একটা ভালো পার্টনারশিপ দরকার ছিল। জানতাম, সেটা হলে রানটাও উঠবে।" তিনি আরো বলেন, "রবিনের অবিশ্বাস্য ফর্ম টিমের মজ্জায় বিশ্বাস ঢুকিয়ে দিয়েছে যে, আমরা নিজেদের ক্ষমতা অনুযায়ী খেললে যে কাউকে হারিয়ে দেব।" কিন্তু প্রথম সাত ম্যাচের পাঁচটায় হারে যে টিম, তারাই আবার পরের ছয়টা ম্যাচের ছয়টায়ই জেতে কিভাবে?
এই প্রশ্নে সাকিবের উত্তর, "দেখুন, আমরা জানতাম কাজটা কঠিন। কিন্তু ম্যাথমেটিক্যালি পসিবল। সবচেয়ে বড় কথা, ২০১২ সালে আমরা এ রকমই করেছিলাম। টানা সাতটা ম্যাচ জিতে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলাম। বিশ্বাস ছিল, দুই বছর আগে পারলে দুই বছর পরও পারব। আশা করি কাপটাও জিততে পারব।"
সাকিব আল হাসান আবার কলকাতাকে জিতিয়ে দেশে ফিরবেন কি না, সময় বলবে। কিন্তু তাঁর বর্তমান প্রাপ্তিও খুব খারাপ নয়। সোনালি-বেগুনি জার্সিতে তিনি নামলেই ঢাকায় টিভি শো-রুমের সামনে আবার গিজগিজে ভিড়, এফএম চ্যানেলের ম্যাচের কমেন্ট্রি জোরে বাজিয়ে দেওয়া, তিনি বাউন্ডারি মারলে তুমুল উল্লাস, চায়ের দোকানে-আড্ডায় আবার তিনি তর্কের বিষয়বস্তু।"

এ জাতীয় আরও খবর

আওয়ামী লীগের ফাঁদে পা দেবে না বিএনপি: গয়েশ্বর

‘পাগলা রাজা’কে বিক্রি করা নিয়ে দুশ্চিন্তা

‘প্রধানমন্ত্রী নিজেও জানেন না, কত বড় উপকার করেছেন’

ব্যবসায়ীর আত্মহত্যা : হেনোলাক্সের এমডি-পরিচালক রিমান্ডে

বন্যায় পিছিয়ে যাওয়া এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী

ভারতে মুসলিম আধ্যাত্মিক নেতাকে গুলি করে হত্যা

করোনায় ৪ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৭২৮

শিক্ষক উৎপল হত্যা মামলায় এবার জিতুর স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

উত্তরের পথে শঙ্কা ১৪ কিলোমিটার

উত্তরে বইছে তাপপ্রবাহ, কমতে পারে তাপমাত্রা

পদ্মা সেতু উদ্বোধনের পর বিএনপি নেতাদের ‘বিষজ্বালা’ বেড়েছে

সম্রাটের জামিন শুনানি পেছালো