মঙ্গলবার, ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নবীনগর আনসার-ভিডিপি কর্মকর্তার দুর্নীতি’র অভিযোগ- আনসার,ভিডিপি সদস্যদের সম্মানী ভাতার লক্ষ লক্ষ টাকা আত্মসাৎ

news-image


aniom2মিঠু সূত্রধর পলাশ, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর আনসার-ভিডিপি ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বাবর আলী’র বিরুদ্ধে ব্যাপক দূর্নীতি’র ও অসদাচরনের অভিযোগ উঠেছে। জাতীয় সংসদ ও উপজেলা নির্বাচনে বিভিন্ন ভোটকেন্দ্রে দায়িত্ব পালনকারী আনসার-ভিডিপি’র সদস্যদের সম্মানী ভাতার লক্ষ লক্ষ টাকা আত্মসাৎ করেন তিনি। উপজেলার শ্রীরামপুর ইউনিয়নের আনসার ভিডিপি’র দলপতি মোঃ আবদুল কুদ্দুস ও বীরগাঁও ইউনিযনের দলনেত্রী কোহিনুর বেগম গত দু’টি নির্বাচনের ডিউটির মাস্টার রোলে টাকার অংক না বসিয়ে কৌশলে সকল সদস্যদের স্বাক্ষর নিয়ে উক্ত টাকা আত্মসাৎ করে বলে কুমিল্লা আনসার ভিডিপির রেঞ্জ ও নবীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট লিখিত এ অভিযোগ করেন।অভিযোগ সুত্রে জানা যায়-ওই দু’টি নির্বাচনে আনসার-ভিডিপি’র ৩১১২ জন সদস্য ১২৮টি ভোটকেন্দ্রে গ্রুপ ভিত্তিক(১২জন) ডিউটি করেন। প্রত্যেক সদস্যদের ১৯৫০/=করে দেয়ার কথা থাকলেও কাউকে পুরো টাকা দেওয়া হয়নি। অন্যায়ভাবে ১৬ জনের হাজিরা কাটিয়া দেন তিনি এবং প্রত্যেক এর কাছ থেকে যাতায়ত বাবদ ১০০ থেকে ২০০ টাকা কাটিয়া রাখেন। তিনি উক্ত তালিকার নিয়োগ প্রাপ্ত সদস্যদের বাদ দিয়ে বিভিন্ন গ্রাম থেকে কম টাকায় লোক ভাড়া করে লোক এনে ডিউটি করান। অভিযুক্ত ভারপ্রাপ্ত আনসার-ভিডিপি কর্মকর্তা খন্দকার বাবর আলী এ অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোয়াট উল্লেখ করে বলেন, আমার বিরুদ্ধে এটি একটি সাজানো নাটক। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু শাহেদ চৌধুরী বলেন,এ ব্যাপারে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে ।