সোমবার, ২৭শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৩ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কুখ্যাত আবু গারাইব কারাগার বন্ধ

news-image

ইরাকের কুখ্যাত আবু গারাইব কারাগার বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বেগ দেখা দেওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। গতকাল মঙ্গলবার ইরাকের বিচার মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে।


আজ বুধবার বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে জানানো হয়, দেশটিতে সহিংসতা বেড়েই চলছে। চলতি বছর সহিংসতায় আড়াই হাজারেরও বেশি মানুষ নিহত হয়েছে। আবু গারাইব কারাগারটি পশ্চিম বাগদাদে অবস্থিত। এটি অন্যতম সহিংস ও অনিরাপদ এলাকা।


এক বিবৃতি জানানো হয়, দেশটির বিচার মন্ত্রণালয় বাগদাদের কেন্দ্রীয় কারাগার, অতীতে যা আবু গারাইব নামে পরিচিত, সেটি পুরোপুরি বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।


আবু গারাইব কারাগারে দুই হাজার ৪০০ কয়েদি ছিলেন। এই কয়েদিরা সন্ত্রাসমূলক অপরাধে গ্রেপ্তার বা দণ্ডিত হয়েছেন। ইরাকের অন্য কারাগারে তাঁদের সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।


আবু গারাইব কারাগারটি স্থায়ী না সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে, তা স্পষ্ট নয়।


ইরাকের সাবেক প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের শাসনামল থেকেই কারাগারটি নির্যাতন কেন্দ্র হিসেবে কুখ্যাতি অর্জন করে। ২০০৩ সালে ইঙ্গ-মার্কিন বাহিনী ইরাকে আগ্রাসন চালায়। এর পরও আবু গারাইব কারাগারের দুর্নাম ঘোচেনি। মার্কিন সেনারাও কারাগারটিকে বন্দী-নির্যাতন কেন্দ্রে পরিণত করে। লোমহর্ষক নির্যাতনের সেসব চিত্র ফাঁস হলে বিশ্বব্যাপী সমালোচনার ঝড় ওঠে।