শুক্রবার, ২১শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ৭ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

ক্যালিসকে বিদায়ী উপহার দিল প্রোটিয়ারা

kallis-2অসাধারণ এক জয়ের মাধ্যমেই দক্ষিণ আফ্রিকা তাদের ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডারকে বিদায়ী উপহার দিয়েছে। সোমবার দ্বিতীয় ও চূড়ান্ত টেস্টের শেষ দিনে তারা ১০ উইকেটের জয় তুলে নেয় ভারতের বিরুদ্ধে।

ডারবান টেস্টের চূড়ান্ত দিনে ভারতকে দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ২২৩ রানে অলআউট করে দেয়া স্বাগতিকদের জয়ের লক্ষ্য দাঁড়ায় মাত্র ৫৮ রান। দুই ওপেনার অধিনায়ক গ্রায়েম স্মিথ ও আলভিরো পিটারসেন মাত্র ১২ ওভারের মধ্যেই এই লক্ষ্যে পৌঁছে দেন দলকে।

পিটারসেন ৩৭ বলে ৫ চার ও ১ ছক্কায় ৩১ এবং স্মিথ ৩৩ বলে ৪ চার ও ১ ছক্কায় ২৭ রান তুলে অপরাজিত থেকে দীর্ঘদিনের সতীর্থ ও দেশের অন্যতম সেরা ক্রিকেটার জ্যাক ক্যালিসকে জীবনের শেষ টেস্টেও বিজয়ীর বেশে মাঠ ছাড়ার উপলক্ষ্য করে দেন।

দিনের শুরুতে আগের দিনের ২ উইকেটে ৬৮ রান নিয়ে খেলতে নেমে ফাস্ট বোলার ডেল স্টেইনের ভয়ঙ্কর ফাস্ট বোলিংয়ের মুখে টিকতে পারেননি দুই তরুণ ভিরাট কোহলি ও চেতেশ্বর পুজারা। দলীয় ৭১ রানেই এই দুজন তার শিকারে পরিনত হন। সিরিজে ক্রমাগত হতাশ করা তরুণ রোহিত শর্মাও বেশীক্ষণ ক্রিজে কাটাতে পারেননি। ২৫ রান করে তিনি ভারনন ফিল্যান্ডারের বলে সাজঘরে ফেরেন।

তবে লড়াকু ব্যাটিং উপহার দেন আরেক তরুণ আজিঙ্কা রাহানে। অপর প্রান্ত থেকে কোন সহযোগিতা না পেলেও একাই লড়াই চালিয়ে যান তিনি। তবে দুর্ভাগ্য এ তরুণের। ইনিংসের শেষ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হওয়ার আগে ১৫৭ বলে ১১ চার ও ২ ছক্কায় ৯৬ রানের অসাধারণ এক ইনিংস খেললেও শতরান পুর্ণ করতে পারেননি তিনি। ভারতের সংগ্রহও ২২৩ রানে আটকে যায়।

দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে ভারনন ফিল্যান্ডার ৪৩ রানে এবং ডেল স্টেইন ৪৭ রানে তিনটি করে উইকেট নেন। তবে স্পিনার রবিন পিটারসন ৭৪ রানে ৪ উইকেট নিয়ে ভারতীয়দের দুর্দশা চরমে তোলেন।

এই জয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা টেস্ট ক্রিকেটে তাদের শ্রেষ্ঠত্ব অক্ষুণ্ণ রাখতে সক্ষম হল। ২০০৬ সাল থেকে খেলা ২৫ টেস্ট সিরিজে তাদের হার মাত্র একটিতেই। ডেল স্টেইন এই টেস্টে ১৪৭ রানে ৯ উইকেট নেয়ার পাশাপাশি দলের প্রথম ইনিংসে মূল্যবান ৪৪ রানের ইনিংস খেলে ম্যাচসেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার পান। আর পুরো সিরিজ জুড়েই অসাধারণ ব্যাটিং করা এবি ডিভিলিয়ার্স হন সিরিজের সেরা খেলোয়াড়।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: ভারত প্রথম ইনিংস ৩৩৪ (বিজয় ৯৭, পুজারা ৭০, রাহানে অপরাজিত ৫১, কোহলি ৪৬, ধাওয়ান ২৯, ধোনি ২৪, স্টেইন ৬/১০০, মরকেল ৩/৫০, ডুমিনি ১/১০)

ভারত দ্বিতীয় ইনিংস ২২৩ (রাহানে ৯৬, পুজারা ৩২, রোহিত ২৫, ধাওয়ান ১৯, ধোনি ১৫,কোহলি ১১, পিটারসন ৪/৭৪, ফিল্যান্ডার ৩/৪৩, স্টেইন ৩/৪৭)

দক্ষিণ আফ্রিকা প্রথম ইনিংস ৫০০ (ক্যালিস ১১৫, ডিভিলিয়ার্স ৭৪, পিটারসেন ৬২, পিটারসন ৬১, স্মিথ ৪৭, স্টেইন ৪৪, ডু প্লেসিস ৪৩, ডুমিনি ২৮, জাদেজা ৬/১৩৮, জহির ২/৯৭, শামি ১/১০৪)

দ্বিতীয় ইনিংস ১১.৪ ওভার ৫৯/০ (পিটারসেন অপরাজিত ৩১, স্মিথ অপরাজিত ২৭)