শনিবার, ১৩ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২৯শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল থানাপুলিশ আবারো এগিয়ে।

Policeঅপরাধীদের দমন ও নানা অপরাধ প্রতিরোধে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল থানাপুলিশ আবারো এগিয়ে। সম্প্রতি সরাইলের বিভিন্ন এলাকায় ঘটে যাওয়া আলোচিত ডাকাতি ও চুরির ঘটনা উৎঘাটন, চোরাই মালামাল উদ্ধার ও এর সাথে জড়িতদের গ্রেফতার অভিযানে এখানকার পুলিশ যে ভূমিকা রাখছে তা নানা মহলে প্রসংশনীয়। এছাড়াও সাম্প্রতিক সময়ে অবৈধ অস্ত্র ও মাদক উদ্ধারে পুলিশের অভিযান উল্লেখ করার মত। অপরাধী দমন ও অপরাধ প্রতিরোধে এসব সফল অভিযানের ধারা অব্যাহত রেখেছেন সরাইল থানার উপ-পরিদর্শক ইশতিয়াক আহমেদ ও আবু বক্কর ছিদ্দিকসহ কয়েকজন পুলিশ কর্মকর্তা।
অপরাধ প্রতিরোধে বিশেষ ভূমিকা রাখায় গত মঙ্গলবার জেলা পুলিশ লাইনে সরাইল থানার ওসি আলী আরশাদ, উপ-পরিদর্শক আবু বক্কর ছিদ্দিক ও ইশতিয়াক আহমেদকে অর্থ পুরস্কার ও সম্মাননা সনদ প্রদান করেন চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি মোঃ নওশের আলী পিপিএম। এসময় পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান পিপিএমসহ উর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে সম্প্রতি সরাইল থানায় ওসি হিসেবে আলী আরশাদ যোগদান করার পর অপরাধীদের দমন ও অপরাধ প্রতিরোধে বিরামহীন অভিযান অব্যাহত রেখেছেন। এলাকায় চুরি, ছিনতাই, ডাকাতিসহ নানা অপরাধ প্রতিরোধে নানা উদ্যোগ নিয়েছেন তিনি। এছাড়াও উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় মাদক ও জুয়া আসর উচ্ছেদে জেহাদ ঘোষণা করেছেন ওসি আলী আরশাদ।
অতিসম্প্রতি সরাইলের বিভিন্ন ইরি স্কীম ও আবাসিক এলাকার আটটি বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমার চুরি হয়। একের পর এক ট্রান্সফরমার চুরির ঘটনায় এলাকার কৃষকসহ সাধারণ মানুষ চরম দূর্ভোগে পড়েন। উদ্বেগ প্রকাশ করেন স্থানীয় প্রশাসনসহ সংশ্লিষ্ট বিভাগের কর্মকর্তারা।
ট্রান্সফরমার চোর হোতা গ্রেফতার ও চোরাই মালামাল উদ্ধারে এখানকার পুলিশ তৎপর হয়ে উঠে। গত সোমবার দুপুরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সরাইল থানার এস আই আবু বক্কর ছিদ্দিকের নেতৃত্বে পুলিশ উপজেলার রসুলপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে চোরাই ট্রান্সফরমারের বিপুল পরিমাণ মূল্যবান মালামাল উদ্ধারসহ ট্রান্সফরমার চোর হোতা ডাকাত সর্দার মানিক মিয়াকে গ্রেফতার করে। এসময় অপরাধীদের অর্তকিত হামলায় আহত হন অভিযান পরিচালনাকারী পুলিশ কর্মকর্তাসহ চার পুলিশ সদস্য। পরে ডাকাত মানিকের বাড়ির বিভিন্নস্থানে তল্লাসী চালিয়ে একটি রিভলবার ও একটি পাইপগানসহ ট্রান্সফরমার চুরির যাবতীয় সরঞ্জাম ও বেশকিছু অস্ত্র উদ্ধার করে পুলিশ।
এদিকে সরাইলের বিভিন্ন সড়ক মহাসড়কে ডাকাতি প্রতিরোধ ও চিহ্নিত ডাকাতদের গ্রেফতারে এখানকার পুলিশ বিশেষ অভিযান পরিচালনা অব্যাহত রেখেছে। সম্প্রতি সরাইল থানার এসআই ইশতিয়াক আহমেদ নানা কৌশল খাটিয়ে বেশকয়েকজন সড়ক ও নৌ ডাকাতকে গ্রেফতার করেছেন। এছাড়াও এসআই আবু বক্কর ছিদ্দিকসহ সরাইল থানার কয়েকজন দারোগা ও সহকারী দারোগা এলাকায় ডাকাতিসহ নানা অপরাধ প্রতিরোধে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখছেন।