শুক্রবার, ২রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

সমঝোতা ছাড়া নির্বাচনে হুমকির মুখে পড়বে গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা

5555555চলমান রাজনৈতিক সংকটের মধ্যে সরকারের অধীনে নির্বাচন হলে তা যেমন গ্রহণযোগ্য হবে না, তেমন প্রধান বিরোধীদলকে বাদ দিয়ে নির্বাচন হলে তা টেকসইও হবে না। এমন মšত্মব্য রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের। বেসরকারি এক টেলিভিশন চ্যানেলে সংবিধান ও আইন বিশেষজ্ঞ ড. শাহদীন মালিক এবং  ইউনিভার্সিটি অফ লিবারেল আর্টস বাংলাদেশ এর অধ্যাপক সলিমুল্লাহ খান এসব কথা বলেন।

 

একদিকে সরকারের অধীনে নির্বাচনের প্রস্তুতি নেয়ার কথা বলছেন নির্বাচন কমিশন, অন্যদিকে নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন না হলে দেশকে অচল করে দেয়ার হুমকি দিচ্ছে প্রধান বিরোধী দল। এই দুই টানাপোড়েনের কথা মাথায় রেখেই রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের আশংকা, নির্বাচন হলেও তা গ্রহণযোগ্য ও টেকসই হবে না।

 

এই প্রসঙ্গে ড. শাহদীন মালিক বলেন- নির্বাচন হবে, কিন্তু সবার অংশগ্রহণ ছাড়া এই নির্বাচন পুরোপরি গ্রহণযোগ্যতা পাবেনা। তিনি আরো বলেন, অতীতে যারাই একতরফা নির্বাচনের মাধ্যমে ক্ষমতায় এসেছে তারা বেশিদিন ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারেনি।

 

অধ্যাপক সলিমুল্লাহ খান বলেন, নির্বাচন করতে হলে অবশ্যই সমঝোতার মাধ্যমে নির্বাচন করতে হবে। এখন মারামারি করে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় টিকে থাকলেও পরবর্তীতে এই শাšিত্মপূর্ণ অবস্থা থাকবে না।

 

অন্যদিকে সাবেক রাষ্ট্রদূত ও পররাষ্ট্র সচিব হুমায়ুন কবির বলেন- সব দলের অংশগ্রহণ, নির্বাচন কমিশনের শক্তিশালী ভূমিকা, বিদেশি পর্যবেক্ষকদের উপস্থিতি এবং ভোটারদের শাšিত্মপূর্ণভাবে ভোট দেয়ার ব্যবস্থা করতে না পারলে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে না। কারণ এই চারটির মধ্যে কোনো একটি প্রক্রিয়া যদি না থাকে তাহলে বাকি প্রক্রিয়াগুলোর মধ্যেও অসম্পূর্ণতা থেকে যেতে পারে। গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ার জন্য এটি সুস্থ অবস্থা হবেনা বলে তিনি মনে করেন।

 

তাই সমঝোতার মাধ্যমে নির্বাচন না হলে তা দেশের গণতান্ত্রিক ব্যবস্থার জন্য হুমকির কারণ হয়ে দাঁড়াবে বলে মনে করছেন এই রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। সময় টিভি