সোমবার, ২৯শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

স্ত্রীকে হত্যার পর মেয়েকে নিয়ে থানায় হাজির স্বামী

news-image

পিরোজপুর প্রতিনিধি : পিরোজপুর সদর উপজেলায় স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যার পর থানায় গিয়েছেন ঘাতক স্বামী। পারিবারিক কলহের কারণে স্ত্রীকে কুপিয়ে করে বলে দাবি স্বামীর।

উপজেলার শিকদার মল্লিক ইউনিয়নের জুজখোলা গ্রামে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে ঘটনাটি ঘটে।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার রাতে স্ত্রী তাহমিনা বেগমকে (৪৪) কুপিয়ে হত্যা করে শুক্রবার সকালে পিরোজপুর সদর থানায় হাজির হয় স্বামী আব্দুস সত্তার (৫০)।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পিরোজপুর সদর উপজেলার সিকদার মল্লিক ইউনিয়নের জুজখোলা গ্রামের বাসিন্দা মৃত জোনাব আলি শেখের ছেলে আব্দুস সত্তার বিভিন্ন এনজিও ও ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে তা পরিশোধ করতে না পেরে অনেকটা বিপর্যস্ত ছিলেন। এসব কারণে পরিবারের মধ্যে প্রায়ই কলহ লেগে থাকতো। এর জের ধরে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে আব্দুস সত্তার তার স্ত্রী তাহমিনাকে কুপিয়ে হত্যা করে।

পরে শুক্রবার ভোরে আব্দুস সত্তার তার ছয় বছরের ছোট কন্যা সাদিয়া আক্তারকে সাথে নিয়ে পিরোজপুর সদর থানায় হাজির হয়ে স্ত্রীকে হত্যার কথা জানান।

পিরোজপুর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাসুদুজ্জামান জানান, আব্দুস সত্তার পারিবারিক কলহের কারণে স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা করে নিজেই থানায় আসে। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

 

এ জাতীয় আরও খবর

খালেদা জিয়ার লিভার সিরোসিস হয়েছে : মেডিকেল বোর্ড

ওমিক্রন : দেশের সব প্রবেশপথে সতর্কবার্তা

রংপুরে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণ,ভোট দিয়েছেন পুরুষের চেয়ে নারী ভোটারাই বেশি

ওমিক্রন : কারিগরি কমিটির চার সুপারিশ

রংপুরে আগুন পোহাতে গিয়ে অগ্নিদগ্ধ ৭ শিশু, হাসপাতালে ভর্তি

তিন উইকেট হারিয়ে বিপদে বাংলাদেশ

দিনের শুরুতে তাইজুলের জোড়া আঘাত

জার্মানি-ইতালিতে পাওয়া গেল ‘ওমিক্রন’

আখেরি মোনাজাতের মধ্যে দিয়ে শেষ হলো রংপুরের আঞ্চলিক ইজতেমা

গঙ্গাচড়া উপজেলার ৯ ইউনিয়নে চেয়ারম্যানসহ তিন পদে ৫৭৯ প্রার্থীর মনোনয়ন দাখিল

যুক্তরাষ্ট্রে কৃষ্ণাঙ্গ হত্যা মামলায় ৩ শ্বেতাঙ্গকে দোষী সাব্যস্ত

ভাড়া নিয়ে বাগবিতণ্ডা: শিক্ষককে বাস থেকে ফেলে দেওয়ার অভিযোগ