শনিবার, ১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ৩০শে চৈত্র, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

‘লাইক ও স্ট্যাটাস নিয়ে মেতে থাকলে চিন্তা করব কখন!’

85bdd192b11992435e6e3d055dd615ee-Kabir-Hossain_-upযেভাবে কাটল ঈদ…

আমার ঈদ সব সময় পরিবারের সঙ্গেই কাটে; এবারও তেমনই কেটেছে। ঈদের দিন অবশ্যই নানুর বাসায় যাই। পরিবারের সঙ্গে হইহুল্লোড় করে কেটে যায় ঈদ। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি।

সম্প্রতি জানা গেল, প্রচুর গান শোনেন আপনি…

হ্যাঁ, গান আমার খুব প্রিয়। এখনো প্রচুর গান শুনি। আগে তো আরও বেশি শুনতাম। গানের মধ্যে ইনস্ট্রুমেন্টাল আমার পছন্দের। ক্লাসিক্যালও ভালো লাগে। ধরুন, সকালে ঘুম থেকে উঠেই সিডি প্লেয়ারে আপনি বাজিয়ে দিলেন ওস্তাদ রাশিদ খান, আপনার মনটাই কি ভালো হয়ে যায় না? গান আমাকে অন্য এক ভুবনে নিয়ে যায়, এ ভুবন সম্পূর্ণই আমার।

গান শোনা অভিনয়ের ক্ষেত্রে কতটা কাজে লাগে?

কাজে তো লাগেই। শুধু গান কেন, বই পড়া, ছবি দেখা—অভিনয় করতে গেলে সবই কাজে লাগে। অভিনয় আসলে কী? একটি চরিত্রকে ফুটিয়ে তোলা। গান শোনা বলেন, বই পড়া বলেন—আপনি চাইলে সবকিছুর মধ্য থেকে চরিত্রের জন্য রসদ নিতে পারবেন। কোনটা যে কোন সময় কাজে লেগে যায়!

কোনো চরিত্রে অভিনয়ের সময় আপনার প্রস্তুতিগুলো কেমন থাকে?

আমার মনে হয়, একজন শিল্পীর কাছে জরুরি বিষয় হলো চারপাশ দেখতে পারার ক্ষমতা। কোনো স্ক্রিপ্ট পেলে প্রথমে সেই স্ক্রিপ্ট ও আমার চরিত্রকে উপলব্ধির চেষ্টা করি আমি। এরপর বুঝতে চাই স্ক্রিপ্টের না বলা কথাগুলো। অভিনয়ের ক্ষেত্রে আমার প্রস্তুতি আসলে এখনো প্রথম দিনের মতো—চরিত্রকে মনের চোখে আগে দেখতে চাই আমি।

যে চরিত্রে অভিনয় করা হয়নি…

অনেক চরিত্রেই তো অভিনয় করতে ইচ্ছা জাগে। যখন যে বই পড়ি, সেই বইয়ের চরিত্রগুলো, সে নারী চরিত্র হোক কিংবা পুরুষ, আমি সেই চরিত্রে নিজেকে দাঁড় করাই। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘পোস্টমাস্টার’ গল্পের রতন চরিত্রে অভিনয় করার খুব ইচ্ছা আমার। কিন্তু এখন কি আর ১২ বছর বয়সী রতনের চরিত্রে অভিনয় করতে পারব আমি? পারব না।

টেলিভিশনে আপনার উপস্থিতি খুব কম; এখন আপনাকে প্রায় দেখাই যায় না…

প্রথমত বলি, নিজেকে ঘন ঘন স্ক্রিনে দেখতে আমার ভালো লাগে না। আমি অলস। প্রতিনিয়ত টিভির পর্দায় উপস্থিত হওয়ায় মতো অত মেধাবীও নই আমি। আর টেলিভিশন নাটক এখন কি কেউ দেখে? আমাদের টিভি নাটকের প্রতিটি ক্ষেত্রেই এখন খুব গরিবি দশা।

আপনি চলচ্চিত্রে অভিনয় করছেন। বাংলাদেশের চলচ্চিত্র নিয়ে কী বলবেন?

ফিল্মের অবস্থা ভালো হবে বলে ভেবেছিলাম। কিন্তু ১০-১২ বছরের আগে ভালো হওয়ার আশা তো দেখি না। আমাদের এখানে ভালো প্রেক্ষাগৃহ নেই। দর্শকের হলে আসার ক্ষেত্রে এটা একটা বড় বাধা। এ ছাড়া আমাদের দেশের চলচ্চিত্রের উন্নতি করতে হলে দর্শকের রুচির পরিবর্তনও জরুরি।

প্রযুক্তি আর ফেসবুকের মাধ্যমে অনেক তারকাই এখন দর্শকের সঙ্গে সরাসরি সংযুক্ত থাকতে পারছেন…

প্রযুক্তি বা ফেসবুকের নিঃসন্দেহে অনেক ভালো দিক আছে। তবে ব্যক্তিগতভাবে আমি প্রযুক্তিবিবাগি মানুষ। সারাক্ষণ ফেসবুকে লাইক ও স্ট্যাটাস নিয়ে মেতে থাকলে চিন্তা করব কখন! আমার মতে, অতিরিক্ত প্রযুক্তিমুখিতা কিংবা অতিমাত্রায় ফেসবুক ব্যবহার সৃজনশীলতার জন্য ক্ষতিকর।

এ জাতীয় আরও খবর

ক্যানসার আক্রান্ত অভিনেত্রীর পাশে ফারহান

যুক্তরাষ্ট্রে ঈদ উদযাপনে গোলাগুলি, আহত ৩

ফিলিস্তিন রাষ্ট্রকে স্বীকৃতি দিতে প্রস্তুত স্পেন

গোর-এ-শহীদ ময়দানে ৬ লাখ মুসল্লির ঈদের নামাজ আদায়

একদিনে শীর্ষস্থান হারালেন মুস্তাফিজ

মায়ের জমানো টাকা ও গাড়ি বেচে সিনেমা, হল না পেয়ে কাঁদলেন নায়ক

অপরাজনীতি যেন চিরতরে দূর হয়, প্রার্থনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

পরিবারের মুখে হাসি ফোটাতে আড়ালেই থাকে তাদের কষ্ট

শুধু বিএনপি নয়, পুরো দেশ দুঃসময় পার করছে : মির্জা ফখরুল

ঈদের আনন্দ থেকে কেউ যেন বঞ্চিত না হয় : রাষ্ট্রপতি

রোজায় এক হাজার ইফতার পার্টি করেছে বিএনপি : প্রধানমন্ত্রী

মিরপুর চিড়িয়াখানায় হাতির আঘাতে কিশোরের মৃত্যু