বৃহস্পতিবার, ১১ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২৭শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

৯৬ ঘণ্টা হরতালের ঘোষণা আসছে

Hartal-96বিএনপি নেতৃত্বাধীন ১৮ দলীয় জোটের ডাকা টানা ৮৪ ঘন্টা হরতাল শেষ না হতেই আবারও ৯৬ ঘন্টা হরতালের ঘোষণা আসছে। আগামী সপ্তাহে যে কোনও দিন তারা ৯৬ ঘন্টা হরতালের ঘোষণা দিতে পারেন। গতকাল মঙ্গলবার বিএনপির কয়েকজন শীর্ষ নেতাদের সঙ্গে কথা বলে এমনটাই জানা গেছে।

তবে জামায়াতের পক্ষ থেকে অবরোধ ও ঘেরাও কর্মসূচির ঘোষণা দেওয়া হলেও আন্দোলনের মাঠে থাকার মতো শক্তির অভাবে বিএনপি একমত নয়। হরতাল না অবরোধ কর্মসূচি দেওয়া হবে তা নিয়ে বিএনপি ও জামায়াতের মধ্যে দুই মত চলছে। বিএনপির ৫ শীর্ষ নেতা গ্রেপ্তার হওয়ার পর তাদের আন্দোলন অনেকটা দুর্বল হয়ে পড়েছে। গত হরতাল গুলোতে বিএনপি ও জামায়াত-শিবিরের নেতাকর্মীদের মাঠে দেখা যায়নি। রাজধানীতে হরতালের তেমন কোনও প্রভাব লক্ষ্য করা যায়নি। ইতিমধ্যে বিএনপির শীর্ষ স্থানীয় নেতারা গাঁ ঢাকা দিয়েছেন। অনেকেই নিজ বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র থাকছেন। গ্রেপ্তার এড়াতে মাঠে নামছে না বিএনপির নেতারা। তবে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় চোরা গোপ্তা হামলার পরিকল্পনায় রয়েছে জামায়াতের ছাত্র সংগঠন শিবির।

বিএনপি সূত্রে জানা যায়, নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন এবং গ্রেপ্তারকৃত নেতাদের মুক্তির দাবীতে আগামি সপ্তাহেও ৯৬ ঘন্টা বা ৪দিনের হরতালের ঘোষণা দিবে বিএনপি। এমনকি যতদিন নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন ব্যবস্থা এবং শীর্ষ নেতাদের মুক্তি না হবে ততদিন তাদের হরতাল চলবে।

জামায়াতের একটি সূত্র জানিয়েছে, নিজেদের অবস্থান ধরে রাখতে রাজপথ গরম করে রাখতে চাইছে জামায়াত। দলের শীর্ষ নেতারা যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে অভিযুক্ত। বেশিরভাগ নেতারা কারান্তরীন। এ অবস্থায় শিবিরের ক্যাডারদের দিয়ে রাজপথ কাঁপানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হচ্ছে জামায়াত। তবে বিএনপির সঙ্গে জোট করে তাদের নির্দেশনা অনুযায়ী বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করবে জামায়াত।