শুক্রবার, ২রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

প্রেমিকাকে পেতে স্ত্রীকে বিষ খাইয়ে হত্যা

news-image

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানীর তেঁজগাওয়ের পশ্চিম নাখালপাড়ায় স্ত্রীকে খাইয়ে হত্যার অভিযোগে স্বামী সালাম ও প্রেমিকা শিরিনসহ কথিত জ্বীনের মা বৃষ্টিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ঘটনার ১২ ঘণ্টার মধ্যে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

পুলিশ বলছে, পরকীয়ায় জড়িয়ে প্রেমিকাকে পেতে পরিকল্পিতভাবে স্ত্রী স্মৃতিকে হত্যা করে স্বামী। মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে নিজ কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন ডিএমপির তেঁজগাও বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার এইচ এম আজিমুল হক।

আজিজুল হক বলেন, ঘাতক সালাম ও নিহত স্মৃতির ৯ মাস আগে বিয়ে হয়। তাদের দুইজনের গ্রামের বাড়ি নরসিংদীর রায়পুর। বিয়ের আগে সালামের সঙ্গে তার মামাতো বোন শিরিনের সম্পর্ক ছিল। বিয়ের পর তাদের সম্পর্ক পরকীয়ায় রূপ নেয়। তারা দুইজনই একই বিস্কুট কারখানায় কাজ করে আসছিলেন। এই সুযোগে বৃষ্টিকে সরিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করেন সালাম-শিরিন। পরিকল্পনা অনুযায়ী সালামের বাসার আরেক ভাড়াটিয়া কথিত জ্বীনের মা বৃষ্টির কাছ থেকে দুধে মন্ত্র পড়িয়ে এনে স্মৃতিকে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার পরিকল্পনা করে। এজন্য দুই বোতল দুধ কিনে বৃষ্টির বাসার ফ্রিজে রাখেন সালাম। পরে সালাম ও শিরিন পরিকল্পনা বদলে দুধের সঙ্গে বিষ মিশিয়ে স্মৃতিকে পান করায়। এরপর সালাম কাজে চলে যায়। পরে স্ত্রী স্মৃতি অসুস্থ হয়ে পরলে তাকে উদ্ধার করে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

তিনি আরো বলেন, এ ঘটনায় নিহত স্মৃতির বাবা কামাল মিয়া বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন। পরে সিসিটিভি ফুটেজ ও তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে সালামকে রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার কাকন হাট এলাকা থেকে ও প্রেমিকা শিরিনকে তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার নাবিস্কো এলাকায় অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করা হয়। এছাড়া কথিত জ্বীনের মাকেও গ্রেপ্তার করা হয়েছে।