শনিবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বৈশাখের চাহিদা মেটাতে মিয়ানমারের ইলিশ

elishবাঙালির সংস্কৃতিতে পহেলা বৈশাখের উৎসবে পান্থা ইলিশ থাকবে না এটা এখন কল্পনাও করা যায় না। তাই তো দেশের সর্বত্রই এখন ইলিশের প্রচুর চাহিদা। শেষ সময়ে ইলিশের বাজার মূল্য কয়েক গুন বাড়লেও ক্রয় বিক্রিতে কোনো ভাটাই পড়েনি।
বিভিন্ন নদ নদীর ইলিশের মধ্যে চাঁদপুরের পদ্মা-মেঘনার সুস্বাদু ইলিশের খ্যাতি তো সর্বত্র। কিন্তু সারা দেশের চাহিদা মেটানো তো দূরে থাক ইলিশের রাজধানী খ্যাত চাঁদপুরের মানুষের চাহিদা মেটানোর জন্যেই নেই পর্যাপ্ত ইলিশ। তাই ইলিশের দেশে এখন ইলিশ আমদানি হচ্ছে।চাঁদপুর ও চট্টগ্রামের বেশ কয়েকজন ব্যবসায়ী মিয়ানমার থেকে এবার ইলিশ আমদানি করেছেন। শুধু বৈশাখের জন্যে চাঁদপুরের এক ব্যবাসায়ী আমদানি করেছেন ৬ হাজার ৮০০ কেজি ইলিশ। আর পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে দেশের বিভিন্ন স্থানে এসব ইলিশ বিক্রি হচ্ছে চাঁদপুরর সুস্বাদু ইলিশ বলে।

এমন কি চাঁদপুরের হাট বাজার ছেয়ে গেছে আমদানি করা এসব ইলিশে। আর সাধারন ক্রেতারা না বুঝে এসব ইলিশ ক্রয় করে হচ্ছেন প্রতারিত।
চাঁদপুরের ইলিশের বাজারে আগুন লেগেছে পহেলা বৈশাখের এক সপ্তাহ আগেই। ইলিশের পাইকারী বাজারগুলোতে পদ্মা মেঘনার তাজা প্রতি কেজি ইলিশ বিক্রি হচ্ছে তিন থেকে সাড়ে তিন হাজার টাকা দরে। অর্থাৎ এক কেজি কিংবা তার চেয়ে একটু বড় আকৃতির একটি ইলিশ কিনতে গুনতে সাড়ে তিন থেকে চার হাজার টাকা।
আর এক কেজির চেয়ে ছোট ৭৫০ গ্রাম থেকে ৮৫০শ গ্রাম সাইজের প্রতিটি ইলিশ বিক্রি হচ্ছে ১৫০০ থেকে ১৮০০ টাকা দরে। আর আমদানি করা মিয়ানমার কিংবা কোল্ডস্টোরেজে রাখা ইলিশ বিক্রি হচ্ছে এক হাজার ২০০ টাকা থেকে দুই হাজার টাকা দরে এ নিয়ে চাঁদপুরের মানুষের ক্ষোভের অন্ত নেই। চাঁদপুর শহরের বড় মাছের বাজার বিপনীবাগে এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন খোকা নামের ক্রেতা। 

তিনি বলেন, প্রতি বছর পহেলা বৈশাখের আগে সিন্ডিকেট করে ইলিশের দাম বাড়ানো হয়। এখন আবার মিয়ানমারের ইলিশ আমদানি করে চাঁদপুরের ইলিশ বলে বিক্রি করা হচ্ছে। এসব ইলিশের নেই কোনো স্বাদ।  

চাঁদপুরের স্থানীয় সাংবাদিক শাহাদাত হোসেন শান্ত বলেন, চাঁদপুরের ইলিশের সুনাম সর্বত্র। দেশে বিদেশে চাঁদপুরের ইলিশের একটা ব্যান্ডিং নাম ও খ্যাতি রয়েছে। কিন্তু মিয়ানমারের ইলিশ চাঁদপুরের কথা বলে বিক্রি করাটা যেমন অপরাধ তেমন চাঁদপুরের ইলিশের খ্যাতি নষ্ট করা হচ্ছে।মাছ রপ্তানিকারক মেসার্স সেকান্তর এন্ড কোং এর পরিচালক মো. শবে বরাত বলেন, ‘মাছ আমদানি হচ্ছে এতে অসুবিধা নেই। কিন্তু বিক্রেতারা যে ক্রেতাদের সঙ্গে প্রতারনা করছে এতে তো আমাদের ব্যবসার সুনাম নষ্ট হচ্ছে। তিনি বলেন, মিয়ানমারের ইলিশ দেখতে একটু লম্বাটে, লালছে আর ঘোলা আকৃতির। আর চাঁদপুরের ইলিশ রিস্টপুষ্ট ও চেপটা, দেখতে রুপারমত ঝকঝকে। একদম তাজা মনে হবে।’ 

চাঁদপুরের আল মদিনা ফিস এন্ড কোং এর মালিক ইমরান হোসেন ফয়সাল জানান, সারা দেশে চাঁদপুরের পদ্মা মেঘনার বলে যে ইলিশ বিক্রি হচ্ছে তার বড় একটা অংশই হচ্ছে কোল্ড স্টোরেজে সংরক্ষণে রাখা পুরনো ইলিশ। সেই সঙ্গে মিয়ানমার থেকে আমদানি করে আনা ইলিশ তো রয়েছেই। তিনি বলেন সারা দেশেই এখন ইলিশের ব্যাপক চাহিদা। চাহিদা অনুযায়ী মাছ সরবরাহ করা যাচ্ছে না। 

এ বছর মিয়ানমার থেকে ইলিশ আমদানি করেছে চাঁদপুরে মেসার্স খন্দকার ফিস কোম্পানি। এ কোম্পানির মালিক মালেক খন্দকার জানান, আমার নিজস্ব কোল্ডস্টোরেজে ইলিশ মজুত আছে। এরা এ মৌসুমে মিয়ানমার থেকে অনেক ইলিশই আমদানি করেছি। কি পরিমান কিংবা কত টন ইলিশ আদমানি করেছেন এমন তথ্য তিনি জানাতে অপারগতা প্রকাশ করে তিনি বলেন, শুধু আমি নই, চট্টগ্রামের অনেক ব্যবসায়ী এ বছর মিয়ানমার থেকে ইলিশ আমদানি করেছেন। 

এ প্রতিষ্ঠানের ম্যানাজার খলিলুর রহমান জানান, বৈশাখ উপলক্ষে আমদানি করা হয়েছে ১৭শ মন। যা কেজির হিসাবে ৬ হাজার ৮০০ কেজি। 
জানা যায়, পহেলা বৈশাখ উপলক্ষে করে গেল এক মাসে বিপুল পরিমান ইলিশ মিয়ানমার থেকে বৈধ ও অবৈধভাবে দেশে আনা হয়েছে। 

দেশের অন্যতম একজন ইলিশ গভেষক ড. আনিসুর রহমান বলেছেন, দেশের নদীর ইলিশের চেয়ে মিয়ানমারের কিংবা দীর্ঘদিন কোল্ডস্টোরেজে রাখা ইলিশের স্বাদ হবে দেশি ইলিশের চেয়ে অনেকটা কম। আমদানি করা ইলিশকে দেশিয় ইলিশ বলে বাজারে বিক্রি করার বিষয়ে তিনি বিস্ময় প্রকাশ করেছেন।

এ জাতীয় আরও খবর

বৈধভাবে বাংলাদেশে রেমিট্যান্স পাঠাতে খরচ বেশি, বাড়ছে হুন্ডি : বিশ্বব্যাংক

রাতে সমাবেশস্থল ঘুরে গেলেন মির্জা ফখরুল

২-০ গোলে হারিয়েও ঘানার সঙ্গে বিদায় উরুগুয়ের

পর্তুগালকে হারিয়ে রোনালদোদের সঙ্গে দ্বিতীয় রাউন্ডে কোরিয়া

বাংলাদেশের মানুষদের সমর্থনে গর্বিত আর্জেন্টিনা কোচ স্কালোনি

চিকা মারাকে কেন্দ্র করে চবি ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ চলছে

জাকিরের বিরচিত লড়াইয়ে ‘এ’ দলের ড্র

ঢাবিতে গণধোলাইয়ে আহত শিক্ষক হাসপাতালে

বিএনপি-নাগরিক ঐক্যের ৩১ জন গ্রেপ্তার

‘বাস বন্ধ হলে ধার-দেনা করে সংসার চালাতে হয়’

প্রধানমন্ত্রীর জনসভায় আওয়ামী লীগ সরকারি সুবিধা নিচ্ছে না : স্বপন

ভারত সিরিজে ওয়ানডে অধিনায়ক লিটন