রবিবার, ৭ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ২৩শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

সরাইলে সাপ আতঙ্ক

sapসরাইলে বিরাজ করছে সাপ আতঙ্ক। ঘুম নেই তের পরিবারের সদস্যদের। একাধিক বেঁদে উজার দারস্ত হয়ে ও কোন কুল কিনারা পাচ্ছেন না তারা। সরাইল সদর ইউনিয়নের উচালিয়া পাড়া গ্রামের আবদুল আলীমের বাড়িতে চলছে এ আতঙ্ক। বাড়ির পাশে রয়েছে ফসলি জমির মাঠ ও কিছু ঝোপঝাড়। গ্রামবাসী ও ভুক্তভোগীরা জানায়, গত তিন সপ্তাহ আগে বাড়িতে এক ফুট লম্বা একটি গোখরো সাপের বাচ্চা দেখতে পান জনৈক গৃহকর্তা হামিদ মিয়া। তিনি কৌশলে বাচ্চাটিকে ধরে বোতলে বন্ধি করে রাখেন। ২/১ দিন পর বাড়ির উঠানে পথে দিনে ও রাতে একাধিক সাপের বাচ্চা দৌড়াদৌড়ি লাফালাফি করতে দেখে বাড়ির লোকজন নিশ্চিত হন বাড়িতে অথবা আশে পাশে বড় গোখরো সাপ রয়েছে। সুযোগ বুঝে যে কোন সময় পরিবারের লোকজনকে ছোবল দিতে পারে। এই ভেবে ওই বাড়ির তের পরিবারের সকল সদস্যদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। দিনের চেয়ে রাত কাটে তাদের অতিকষ্টে। গত এক সপ্তাহ আগে বসত ঘরের ভিতরে আট ফুট লম্বা ও পাশের খালি জায়গায় সাত ফুট লম্বা দুটি ছলম দেখতে পায় তারা। একটি ছলমের পাশে পড়ে ছিল মৃত একটি বন বিড়াল। তাদের ধারনা সাপের কামড়েই মারা গেছে বন বিড়ালটি। দুটি হাসকেও কামড়িয়ে মেরে ফেলেছে সাপ। নজরুল মিয়ার স্ত্রী গৃহকর্তী লিপি বেগম (৩০) বলেন, ২/১ দিন পূর্বে আবু চাচার ঘরের পেছনে আমি বিশাল আকৃতির একটি সাপ দেখে ভয় পেয়ে যায়। আমাকে দেখামাত্র সাপটি মাথা উপরে উঠিয়ে ফণা ধরে। আমি জ্ঞান হারিয়ে ফেলি। পরে কি হয়েছে বলতে পারি না। জনৈক গৃহকর্তা হারুন মিয়া বলেন, ওই দিন কবর স্থানের নিকটে একটি সাপ দেখা মাত্র আমার ভিতর শুকিয়ে যায়। এত বড় সাপ আগে কখনো দেখিনি। হামিদ মিয়া জানান, বাড়ির প্রত্যেকটি পরিবারের মহিলা পুরুষ ও বাচ্চারা চব্বিশ ঘন্টা সাপ আতঙ্কে ভুগছে। কমপক্ষে বাড়িতে ৮/১০ টি সাপ বসবাস করছে। শতাধিক বাচ্চা রয়েছে। কয়েকবার বেঁদে ও উজা এনেছি। তারা ভয় পায়। ক্ষমা চেয়ে অপারগতা প্রকাশ করে চলে যায়। ভাল উজার সন্ধান করছি। কারো সন্ধানে ভাল উজা থাকলে ০১৭২৮-৯৮৪১০০ নাম্বারে ফোন করে সহযোগীতা করার জন্য তিনি অনুরোধ জানিয়েছেন।

এ জাতীয় আরও খবর

বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে হত্যা মামলার আসামিকে কুপিয়ে খুন

সরকারের উন্নয়নের ফানুস ফুটো হয়ে যাচ্ছে: সাকি

কিয়ারা আপনার প্যান্ট কোথায়, প্রশ্ন নেটিজেনদের

হাঁটুর অস্ত্রোপচারের পর দোয়া চাইলেন শোয়েব আখতার

চীন সীমান্তে সামরিক মহড়া চালাবে যুক্তরাষ্ট্র-ভারত

শিল্পাঞ্চলে আলাদা সাপ্তাহিক ছুটির ভাবনা

সরকার নিরুপায় হয়ে জ্বালানি তেলের দাম বাড়িয়েছে : কাদের

মিরাজের শিকারে জিম্বাবুয়ের তৃতীয় উইকেট

পুলিশের গাড়িতে বাসের ধাক্কা, কনস্টেবলের প্রাণ গেল

দারুণ ফিফটির পর তামিমের বিদায়

‘যাত্রী প্রতিনিধি ছাড়াই বাস ভাড়া নির্ধারণ করা হয়’

বাংলাদেশের ৯৯ শতাংশ পণ্যের শুল্কমুক্ত সুবিধা দেবে চীন